বার্তা পরিবেশক :

শান্তি ও সম্প্রীতির বন্ধনে আন্তঃধর্মীয় সংলাপ অনুষ্ঠিত হয়েছে। গত মঙ্গলবার ও বুধবার  কক্সাজার জেলা পরিষদ কন্সফারেন্স রুম, হোটেল সিলভার সাইন এবং কক্সবাজার প্রেসক্লাব হল রুমে দি নেটওয়ার্ক ফর রিলিজিয়াসসহ অন্যান্য কয়েকটি দাতা সংগঠনের পৃষ্টপোষকতায় পৃথক পৃথক দু’দিন ব্যাপী এ সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়। এর প্রধান পৃষ্টপোষকতায় ছিলেন ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন।

দি নেটওয়ার্ক ফর এর ফেলো উজ্জ্বল কান্তি দেব এর সভাপতিত্বে, রিয়া বড়ুয়ার ও মো: শাহ-নিবরাস এর সঞ্চালণায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন তথ্য মন্ত্রণালয় সম্পর্কীত সংসদীয় কমিটির সদস্য ও কক্সবাজার সদর-রামু আসনের সাংসদ সাইমুম সরওয়ার কমল এমপি।  তিনি বলেন, বাংলাদেশ ঐতিহ্যগতভাবে সম্প্রীতির বন্ধনে আবদ্ধ। এ সম্প্রীতির রুপকার ছিলেন জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। তাই সকল ধর্মের প্রতি সকলের শ্রদ্ধাশীল হতে হবে।

২য় দিনের অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, ট্যুরিস্ট পুলিশ সুপার জিল্লুর রহমান, এসময় তিনি বলেন, “শান্তি হচ্ছে ভালো মানুষ ও নিজের মধ্যে এবং অন্যের ক্ষতি থেকে বিরত থাকলে মানুষ প্রকৃত শান্তি খোঁজে পেতে পারে। তাই সবাইকে সকল ধর্ম ও মানুষের প্রতি সমদৃষ্টি থাকা উচিত।

এদিকে কক্সবাজার প্রেসক্লাবে একই দিনে, একই বিষয়ের উপর আয়োজিত সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কক্সবাজার অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট ও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মোহাং শাহজাহান আলী। এসময় তিনি বলেন, সাম্প্রদায়িক সম্প্রতি বন্ধনে সকল ধরনের দ্বন্ধের অবসন হওয়া উচিত এবং আন্তঃধর্মীয় সংলাপই একমাত্র উত্তম পন্থা।

উক্ত সেমিনার সমুহের প্রধান বক্তা হিসেবে উপিস্থিত ছিলেন, ডঃ এম ডি সিকান্দার চৌধুরী সাবেক ডীন কলা অনুষদ, চেয়ারম্যান ডিফার্টমেন্ট অফ বাংলাদেশ স্ট্যাডিজ চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়। এময় তিনি বলেন, আন্তঃধর্মীয় সংলাপ ও আন্তঃধর্মীয় নেতৃত্বই পারে বর্তমানে তরুণ সমাজ ও মানুষের মধ্যে সাম্প্রদায়িক সম্প্রতির মেল বন্ধন সুদৃঢ় করতে পারে।

এসময় রিসোর্স পার্সন হিসেবে ছিলেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক পরিচালক ফাইন আর্টস ইনস্টিটিউট, প্রফেসর এম ডি জসিম উদ্দিন, সহযোগী অধ্যাপক, আধুনিক ভাষা ইনস্টিটিইট এর মনজুরুল আলম এবং চট্টগ্রাম বিশ্যবিদ্যালয় দর্শন বিভাগ এর সহযোগী অধ্যাপক মাসুম আহদে।

এসয় উপস্থিত ছিলেন, অধ্যক্ষ অজিত দাশ, হিন্দু কল্যাণ ট্রষ্ট্রের ট্রাষ্টি বাবুল শর্মা, পরমানু কর্মকর্তা ইফতেকার উদ্দিন চৌধুরী, ড. নুরুল আবছার, অধ্যাপক হাশেম উদ্দিন, ইসলামী ফাউন্ডেশন এর কো র্অডিনেটর মো: ফয়েজ, রামুকুট বৌদ্ধ বিহারের পরিচালক জ্যুতিসেন ভিক্ষু, রিলিজন ফর পিস এর (চট্টগ্রাম) ভাইস চেয়ার পার্রসন এন্ড্র গোমেজ, কমরেড গিয়াস উদ্দিন, সাংবাদিক আমির হোসেন হেলালি, এড.সাকী এ কাউছার, অধ্যাপক জসিম উদ্দিন, অধ্যাপক জাহাঙ্গীর আলম, অধাপক নওশাদ, অধ্যাপক শহিদুল আলম, অধ্যাপক আবদুল্লাহ আল- নোমান, আরিফুর রহমান, খুকন চন্দ্র পাটুয়ারি, শাহ নিবরাস, জামসেদ, উসমান গণিসহ সহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার লোকজন ও শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •