আফগানিস্তানের ৭০ ভাগ এলাকায় সক্রিয় তালেবান

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:
আফগানিস্তানের ৭০ শতাংশ জেলায় সক্রিয় রয়েছে তালেবান জঙ্গি গোষ্ঠী। দেশের চার ভাগ এলাকার পুরো নিয়ন্ত্রণ এবং বাকি ৬৬ ভাগ এলাকায় তাদের প্রকাশ্য উপস্থিতি বিদ্যমান রয়েছে। খবর রয়টার্স।

স্থানীয় এক হাজার ২শ মানুষের সঙ্গে কথা বলে যে জরিপ চালানো হয়েছে তা বিভিন্ন এলাকায় তালেবানের উপস্থিতি সম্পর্কে ন্যাটো যে বিবৃতি দিয়েছে তার চেয়ে অনেক বেশি নির্ভরযোগ্য বলে জানানো হয়েছে।

মঙ্গলবার ন্যাটোর এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ২০১৭ সালের অক্টোবর পর্যন্ত আফগানিস্তানের মাত্র ৪৪ ভাগ এলাকায় তালেবানের উপস্থিতি ছিল। কিন্তু তা বেড়ে এখন দাঁড়িয়েছে ৭০ শতাংশ।

এক সপ্তাহের বেশি সময় ধরে আফগানিস্তানে বেশ কয়েকটি ভয়াবহ হামলার ঘটনা ঘটেছে। তালেবান জঙ্গি গোষ্ঠী এবং আইএস এসব হামলার দায় স্বীকার করেছে।

গত শনিবার শহরের সিটি সেন্টারের কাছে শক্তিশালী গাড়ি বোমা হামলা চালায় তালেবান গোষ্ঠী। বিস্ফোরক বোঝাই অ্যাম্বুলেন্সে করে চালানো ওই হামলায় শতাধিক মানুষ প্রাণ হারিয়েছে। ওই হামলায় আরও ১৯১ জন আহত হয়েছে। তালেবান জঙ্গি গোষ্ঠী ওই হামলার দায় স্বীকার করেছে। সরকারি কর্মকর্তারা জঙ্গিদের লক্ষ্য ছিল বলে জানানো হয়েছে। সাম্প্রতিক সময়ে বিভিন্ন স্থানে হামলা চালাচ্ছে আইএস এবং তালেবান জঙ্গিরা।

এর আগে চলতি মাসের ২১ তারিখে একটি ইন্টারকন্টিনেন্টাল হোটেলে তালেবান জঙ্গিদের হামলায় কমপক্ষে ৪০ জন নিহত হয়েছে। এদের মধ্যে ১৪ জনই বিদেশি নাগরিক। ঘটনাস্থলে বন্দুকধারীদের সঙ্গে বিশেষ বাহিনীর প্রায় ১২ ঘণ্টা লড়াই চলে। দীর্ঘ লড়াইয়ের পর বন্দুকধারীদের প্রতিহত করে বিলাসবহুল ওই হোটেলের নিয়ন্ত্রণ নেয় নিরাপত্তা বাহিনী।

আফগান সরকারের পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে রয়েছে মাত্র ১২২টি জেলা। অর্থাৎ সরকারি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে মাত্র ৩০ ভাগ এলাকা। ওই এলাকাগুলোতে তালেবানের সক্রিয় উপস্থিতি নেই। কিন্তু তারপরেও এসব এলাকায় হামলা চালাচ্ছে তালেবান। এসব এলাকায় জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটের (আইএস) উপস্থিতিও রয়েছে। তবে কোনো এলাকাই এখনো তাদের পুরোপুরি নিয়ন্ত্রণে যায়নি।

কক্সবাজার নিউজ সিবিএন’এ প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ সংবাদ

প্রকৃত নেতা মাত্রই পল্টিবাজ : ইমরান খান

ক্যারিবীয়দের বিপক্ষে অধিনায়ক সাকিব, ফিরেছেন সৌম্য

বিজয় ফুল তৈরী প্রতিযোগিতায় চট্টগ্রাম বিভাগে প্রথম উখিয়ার নওশিন

চকরিয়ার রুবেল বাঁচতে চায়

দূর্নীতির দায়ে চট্টগ্রামের কারা ডিআইজি প্রিজন ও জেল সুপারের বদলী

মহেশখালী উন্নয়ন পরিষদের নির্বাচন সম্পন্ন

রোহিঙ্গা শিবিরে কলেরা টিকা ক্যাম্পেইন শুরু

শহর পরিচ্ছন্নতায় নামলেন কক্সবাজার পৌর মেয়র

‘বাবা লাগবে? সবুজ গোলাপি লাল সব আছে’

সংসদ নির্বাচনে কেন আসতে চাচ্ছে না বিদেশী পর্যবেক্ষকেরা?

জোট করা ছাড়া কি এবার জয় সম্ভব নয়?

বাংলাদেশের নির্বাচন : কেন কৌশল পাল্টাল ভারত?

কক্সবাজার সদর-রামু আসনে নৌকা পাচ্ছেন কে?

ভারতের রাজনীতিতে যেভাবে প্রভাব ফেলবে বাংলাদেশের নির্বাচন

চার পয়েন্টকে গুরুত্ব দিয়ে তৈরি হচ্ছে আ.লীগের ইশতেহার

মহেশখালীতে অজ্ঞাত ব্যক্তির লাশ উদ্ধার

দলের সিদ্ধান্ত কতটুকু মানবেন বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশীরা?

মওলানা ভাসানীর ৪২তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ

বিয়ের আগেই ৪৫০ কোটি টাকার বাংলো উপহার

ভারতের তামিলনাডুতে ‘গাজা’র আঘাতে প্রাণ গেল ৩০ জনের