প্রেস বিজ্ঞপ্তি:

হোপ ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ডিপ্লোমা ইন মিডওয়াইফারি প্রোগ্রাম কর্তৃক নারীর প্রতি সহিংসতা বন্ধের লক্ষ্যে কর্মসূচি পালন করা হয়েছে। এই কর্মসূচি গতকাল বুধবার অনুষ্ঠিত হয়। কর্মসূচির এবারের প্রতিপাদ্য বিষয় ছিল ‘কমলা রঙে রাঙিয়ে দাও: পৃথিবীতে ধর্ষণের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হবে’।
উক্ত কর্মসূচির অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন রামু উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আফসানা জেসমিন পপি। বিশেষ অতিথি ছিলেন হোপ ফাউন্ডেশনের কান্ট্রি ডিরেক্টর কে এম জাহিদুজ্জামান। অনুষ্ঠান পরিচালনায় ছিলেন ডিপ্লোমা ইন মিডওয়াইফারি প্রোগ্রামের সহকারি প্রকল্প কর্মকর্তা ইয়াসমিন আক্তার।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে রামু উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আফসানা জেসমিন পপি বলেন, মিডওয়াইফরা নিরাপদ মাতৃত্ব নিশ্চিত করতে অবদান রেখে যাচ্ছে। তাদের এই অবদান আরো প্রসারিত হলে বাংলাদেশ একদিন শতভাগ নিরাপদ মাতৃত্বের দেশে পরিণত হবে। আজকে যারা মিডওয়াইফ প্রশিক্ষণে রয়েছেন তারা নিশ্চিত সে অগ্রযাত্রায় সামিল হবেন।

হোপ ফাউন্ডেশন এর কান্ট্রি ডিরেক্টর কে এম জাহিদুজ্জামান বলেন, বাংলাদেশের নারীরা সব সবকিছু পারে। নারী বলে তারা কোন কাজ থেকে পিছিয়ে নেই। তার উদাহরণ বাংলাদেশের বর্তমান প্রধানমন্ত্রী একজন নারী, স্পিকার একজন নারী। এছাড়াও মন্ত্রী সহ দেশের বিভিন্ন বড় বড় পদে আসীন হয়েছেন বহু নারী। এখন চারদিকে নারীদের জয়জয়কার। বহু ক্ষেত্রে নারীরা পুরুষদের চেয়েও এগিয়ে গেছে। নারী অগ্রযাত্রায় চিকিৎসা ক্ষেত্রে নারীদের অবদান উল্লেখযোগ্য। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নারীদের মাধ্যমে একটি মাতৃমৃত্যু শূন্য বাংলাদেশ উপহার দিতে চান। সে ক্ষেত্রে সবচেয়ে বেশি অবদান রাখতে পারবে।

কর্মসূচিতে ডিপ্লোমা ইন মিডওয়াইফারি প্রোগ্রামের ছাত্রীরা যথাযথ তাৎপর্য মাথায় রেখে একটি জনসচেতনামূলক সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। যেখানে নাটক গান সহ আরো অনেক কিছু আয়োজন করা হয়।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •