ইমাম খাইর, সিবিএনঃ

উখিয়ার হলদিয়াপালং ইউনিয়নের পশ্চিম মরিচ্যা গোরাইয়ারদ্বীপ সড়কের চৌরাস্তার মাথায় এনজিওকর্মী মাজহারুল ইসলামকে ছুরিকাঘাত করে খুনের ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে।
নিহতের ছোট ভাই মোজাহিদুল ইসলাম প্রকাশ লিটন বাদী হয়ে ২১ সেপ্টেম্বর মামলাটি দায়ের করেন। মামলা নং জিআর-৩৮/১৯।
মামলা রেকর্ড হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন উখিয়া থানার ওসি মুহাম্মদ আবুল মনসুর।
তিনি জানান, এই মামলার একমাত্র আসামি আলা উদ্দিনকে শুক্রবার (২০ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যা পৌনে ৬টার দিকে জালিয়া পালংয়ের সোনাইছড়িস্থ খালার বাসা থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এ সময় একটি মোটর সাইকেলও জব্দ করা হয়।
ঘাতক আলাউদ্দিন (২৪) উখিয়ার জালিয়াপালং ইউপির ইনানী মোহাম্মদ শফিরবিল এলাকার জাফর আলমের ছেলে।
শনিবার তাকে আদালতে পাঠানো হলে বিচারকের কাছে সে নিজের দোষ স্বীকার করেছে।
ভিকটিম মাজহারুল ইসলাম দিনাজপুরের বীরগঞ্জের কল্যানীহাট এলাকার আবদুস সাত্তারের ছেলে।

ঘাতক মো: আলাউদ্দিন

১৯ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে উপজেলার হলদিয়া পালং ইউনিয়নের পশ্চিম মরিচ্যা গোরাইয়ারদ্বীপ সড়কের চৌরাস্তার মাথায় ছুরিকাঘাতে মাজহারুল ইসলাম নিহত হয়। সে বেসরকারি সংস্থা ব্র্যাকের হিউম্যান রাইটস অ্যান্ড লিগ্যাল এইড প্রোগ্রামের ফিল্ড অর্গানাইজার ছিল।
এদিকে, নিহত মাজহারুল ইসলামের লাশের ময়নাতদন্ত শেষে স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।
শনিবার বেলা আড়াইটার দিকে লাশটি বুঝে নেন ছোট ভাই মোজাহিদুল ইসলাম, ফুফাতো ভাই গোলাম রব্বানী ও ভগ্নিপতি সাইফুল ইসলাম। স্থানীয়ভাবে সার্বিক সহযোগিতা করেন শহরের বাহারছড়ায় বাসিন্দা নাজমুল হোসেন মিটু।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •