লোহাগাড়া প্রতিনিধি:

আগামী ৩১ মার্চ রোবাবার লোহাগাড়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচন। বহুল প্রত্যাশিত এই উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে সাতকানিয়া-লোহাগাড়া আসনের সংসদ সদস্য প্রফেসর ড. আবু রেজা মুহাম্মদ নেজামুদ্দিন নদভী নৌকার বিরুদ্ধে গভীর ষড়যন্ত্র করছে বলে আজশুক্রবার (২৯ মার্চ) বিকেলে সাংবাদিক সম্মেলনে অভিযোগ তুলেছেন নৌকার প্রার্থী ও লোহাগাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি খোরশেদ আলম চৌধুরী।

লিখিত বক্তব্যে তিনি আরো বলেন, উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে নৌকার বিজয় ঠেকাতে বিভিন্ন সময়ে ইউপি চেয়ারম্যান, ইউপি মেম্বার, স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ ও গন্যমান্য ব্যক্তিদেরকে বাসায় ডেকে নিয়ে আনারস প্রতীকের পক্ষে নির্বাচন করার জন্য বিভিন্ন চাপ সৃষ্টি করছেন। সরকার দলীয় সংসদ সদস্য হয়েও নৌকা প্রতীকের বিরুদ্ধে অবস্থান এবং নৌকা বিজয় ঠেকাতে এমন উদ্ব্যতপূর্ণ আচরণ ও নৌকার বিরুদ্ধে অবস্থান নেয়ায় আমি রীতিমত হতভাগ ও মর্মাহত। সাংসদ নদভীর এমন আচরণে আমি সুষ্ঠু অবাধ নিরপেক্ষ নির্বাচন নিয়ে শংকিত। এছাড়াও প্রতিদ্বন্ধি প্রার্থী জিয়াউল হক চৌধুরী বাবুল ইতোমধ্যে আমার নির্বাচনী এজন্টে, কর্মী ও সমর্থকদের কেন্দ্রে না যাওয়ার জন্য হুমকি দিচ্ছে।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো; মুফিজুর রহমান বলেন নীতিবানরা ভয় করে না। নীতিতে অটল থাকে। নৌকার বিজয় নিশ্চিত জেনে কূচক্রী মহল নানান ষড়যন্ত্র করলেও নৌকার বিজয় ঠেকানো যাবে না। আর যারা দলের হয়ে নৌকার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত শুরু করেছে আগামীতে চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ তাদের বিরেিদ্ধ অবস্থান নিবে।

অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো; মুফিজুর রহমানের, সহ-সভাপতি এ্যাডভোকেট আ.ক.ম সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী, লোহাগাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি জান মোহাম্মদ সিকদার, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মো: ফরিদ আহমদ, অর্থ সম্পাদক মাহমদুল হক, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ, দপ্তর সম্পাদক শাহজাদা তৈয়বুল হক বেদার, কার্যনির্বাহী সদস্য যথাক্রমেমুক্তিযোদ্ধা মো: জামাল উদ্দিন, সাংবাদিক নুরুল ইসলাম ও মামুন-অর রশীদ চৌধুরী, চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি রিহান পারভেজ চৌধুরী, লোহাগাড়া উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ম-আহবায়ক তৌহিদুল হাসান, ছাত্রলীগ নেতা রবিউল ইসলাম রুবেলসহ স্থানীয় সংবাদিকবৃন্দ।