সিবিএন ডেস্ক:
রাজবাড়ী শহরে রক্ত পরীক্ষায় নির্ধারিত মূল্যের চেয়ে দাম বেশি রাখায় এক ক্লিনিক মালিককে জরিমানা করা হয়েছে। জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর রাজবাড়ী কার্যালয়ের উদ্যোগে আজ বুধবার দুপুরে এই অভিযান পরিচালনা করা হয়। এ ছাড়া মেয়াদ উত্তীর্ণ ওষুধ বিক্রি করায় এক ফার্মেসিকেও জরিমানা করা হয়।

অভিযানে নেতৃত্ব দেন জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর রাজবাড়ী কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক শরিফুল ইসলাম। অভিযানে সহযোগিতা করে রাজবাড়ী জেলা প্রশাসন ও সদর থানা-পুলিশ।

ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর রাজবাড়ী কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক শরিফুল ইসলাম বলেন, নিরাময় ক্লিনিকে হিমোগ্লোবিন পরীক্ষার জন্য তালিকার নির্ধারিত মূল্য ৩৫০ টাকা। কিন্তু তানজিলা নামের এক রোগীর কাছ থেকে নেওয়া হয় ৪০০ টাকা। নির্ধারিত মূল্যের চেয়ে ৫০ টাকা বেশি নেওয়ায় নিরাময় ক্লিনিককে ৩০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর রাজবাড়ী কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, আজ দুপুরে শহরের সজ্জনকান্দা এলাকায় অভিযান পরিচালনা করা হয়। এ সময় মেয়াদ উত্তীর্ণ ওষুধ বিক্রি করায় বন্ধু মেডিকেল হলকে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইনের ৫১ ধারায় পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। এ ছাড়া এক কার্টুন ফিজিমিয়ান স্যাম্পল (বিক্রির জন্য নয় লেখা) ওষুধ জব্দ করা হয়েছে। জব্দ করা ওষুধ জেলা সিভিল সার্জনের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।