রোহিঙ্গা নারীরা পথে জন্ম দিচ্ছেন সন্তান

আবুল আলী, টেকনাফ:

মিয়ানমারের সামরিক বাহিনীর নির্মম অত্যাচার-নির্যাতনে আরাকান রাজ্য থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গা নারীরা বাংলাদেশ সীমান্তের কাছে নাফ নদীতে নৌকার মধ্যে ও মাঠে-ঘাটে অনেক নবজাতকের জন্ম দিচ্ছেন।

মিয়ানমার বাহিনীর নির্যাতন থেকে প্রাণে বাঁচতে গর্ভবতী সানোয়ারা বেগম (২৯) পরিবারের ৬জন সদস্য নিয়ে পালিয়ে আসেন। নাফ নদী পাড়ি দিয়ে শাহপরীরদ্বীপ ঘোলারচর এলাকায় পোঁছাই সেখন থেকে টেকনাফে উদ্দেশ্য রওনা হন। আসার পথে হঠাৎ করে পছন্দ বেদনা শুরু হয় তার। এক দিকে ওপারে মিয়ানমারের সীমান্তরক্ষীর বেপরোয়া গুলির ভয়, আবাার এপারে আসার সময় বাংলাদেশের সীমান্তরক্ষীর হাতে ধরা পড়ার ভয়। নৌকাযোগে গত সনিবার রাত ১০টার সময় পালিয়ে আসে মাজপথে সাবাবাং এলাকার রাস্তা পাশে রাত ১২টার দিকে জন্ম দিলেন তিনি এক নবজাতকের। এ নবজাতকের মাতৃভূমি কোন দেশে তা নির্ণয় করা কঠিন হয়ে পড়েছে। সানোয়ারা এ নবজাতকসহ ৫ সন্তানের মা। নবজাতকের বাবা মিয়ানমার মংডু বাঘগোনা এলাকার মোঃ উসমানের ছেলে মো: ইউছার ১দিনে শিশু, মোঃ আয়ুব(৯), মেয়ে সেকুফা বেগম(৭), সনিরা বেগম(৫), রোকিয়া বেগম(৩)। নদী পার হওয়ার পর টেকনাফ রোহিঙ্গা ক্যা¤প লেদা বি ব্লক ২০৩ নাম্বার রুম তার রোনের জামাই হাবিবের বাড়িতে মানবিক কারণে সানোয়ারা বেগমকে আশ্রয় দিয়েছেন। সেনুরা জানান, আর্থিক সঙ্কটের কারণে তিনি কোনো চিকিৎসা পাচ্ছেন না। স্বামী কোথায় গিয়ে কাজ করা মত কোন জায়গা নাই কি ভাবে এক মুতু ভাত খাব তা নিয়ে চিন্তায় আছি।

তার বাবা উসমান জানার, আমার ছোট ছোট ৫ সন্তান নিয়ে এখন আমাদের কী হবে। আমাদের এলাকার থেকে অনেক মানুষ চলে আসছে দেখে মনে হচ্ছে আমরা কোন কাজ পাব না- এ কথা বলের সাথে সাখে কান্নায় ভেঙে পড়েন তিনি।

এ রকম অনেক অগণিত রোহিঙ্গা শিশুর জন্ম হচ্ছে। কারো নাফ নদে নৌকার মধ্যে, কারো নদের পাড়ে, কারো ধানক্ষেতে, জঙ্গলে, গাছের নিচে, রাস্তায় বা খোলা আকাশের নিচে। অর্থাৎ বাংলাদেশ-মিয়ানমার সীমান্তের নাফ নদের আশপাশে তাদের জন্ম। এ রকম শিশুর জন্ম দেয়া একজন মা হামিদা বেগম (৩২)। তিনি মিয়ানমারে বাহিনীর তাণ্ডব থেকে বাঁচতে গর্ভবতী অবস্থায় মাইলের পর মাইল পথ হেঁটেছেন। যখন নাফ নদের তীরে পৌঁছে নৌকায় পা দিয়েছেন, তখনই তার প্রসব বেদনা ওঠে। অগত্যা তীরে উঠে খোলা আকাশের নিচেই জন্ম দিলেন পুত্রসন্তানের।

cbn
কক্সবাজার নিউজ সিবিএন’এ প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ সংবাদ

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন প্রশ্নে অস্পষ্ট অবস্থান আসিয়ান মন্ত্রীদের

কক্সবাজারে ইয়াবা কারবারিদের আত্মসমর্পণ জানুয়ারির শেষে: মন্ত্রী

ঈদগাঁও রিপোর্টার্স সোসাইটির নতুন কমিটি

দলের করণীয় বললেন মওদুদ

সরকারের উন্নয়নের বার্তা ছড়িয়ে দিতে যোগ্য কান্ডারী কছির

উন্নয়ন ও জনসেবায় চকরিয়া-পেকুয়াবাসিকে আস্থার প্রতিদান দিব- জাফর আলম এমপি

বিক্ষুব্ধ বাংলাদেশি শ্রমিকদের আক্রমণের শিকার কুয়েত বাংলাদেশ দূতাবাসে

হুইল চেয়ারে মুহিত, পাশে নেই সুসময়ের বন্ধুরা

ভারত থেকে পালিয়ে আসা ১৩শ’ রোহিঙ্গা এখন বাংলাদেশে

উপজেলা নির্বাচনে ‘স্বতন্ত্রভাবে’ অংশ নেবে বিএনপি

ভাইস চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী ছাত্রলীগ নেতা হিমুর ব্যাপক গনসংযোগ

চট্টগ্রামে ৩টি হাইটেক পার্ক হচ্ছে

সংরক্ষিত আসনে এমপি চান মহেশখালীর মেয়ে প্রভাষক রুবি

ঈদগাঁওতে নৌকার চেয়ারম্যান মনোনয়ন প্রত্যাশী রাশেদের গণসংযোগ

অতিথি পাখির কলকাকলিতে মুখরিত বঙ্গবন্ধু সাফারি পার্ক

কক্সবাজার সদর থানা পুলিশের অভিযানে গ্রেফতার ১১

গণিত ছাড়া জীবনই অচল : জেলা প্রশাসক

উখিয়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ১, চালক আটক

শহর কৃষক লীগের সভাপতির মামলায় ওয়ার্ড সভাপতি গ্রেফতার

২৭০০ ইউনিয়নে সংযোগ তৈরি, বিনামূল্যে ইন্টারনেট ৩ মাস