খাবার, পানীয় ও ওষুধ সামগ্রী নিয়ে রোহিঙ্গা শরণার্থীদের পাশে কোস্ট ট্রাস্ট

Pic-3.jpg

সংবাদদাতা:
মিয়ানমার সরকারের অমানবিক অত্যাচারের শিকার হয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গাদের পাশে দাঁড়িয়েছে বেসরকারী উন্নয়ন সংস্থা কোস্ট ট্রাস্ট।
রোহিঙ্গাদের খাদ্য, পানি সংকট নিরসন, প্রাথমিক চিকিৎসা সেবা দেওয়ার লক্ষ্যে ৮ সেপ্টেম্বর থেকে সংস্থাটি কাজ শুরু করেছে। আগামী বেশ কিছু দিন এই সহায়তা অব্যাহত থাকবে বলে জানিয়েছেন। সর্বমোট ১০ হাজার রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর মাঝে পর্যায়ক্রমে খাবার বিতরণ করা হবে বলে জানান সংস্থার সহকারী পরিচালক তারেক সাঈদ হারুন।
৮ সেপ্টেম্বর প্রায় ১ হাজার রোহিঙগাদের মাঝে খিচুড়ি বিতরণ করা হয়েছে বালুখালী টিভি রিলে কেন্দ্রের সম্মুখে অবস্থানরত রোহিঙ্গা জনগোষ্টির মাঝে। আগামী বেশ কিছু দিন কুতুপালং, বালুখালী এবং থাইংখালীতে প্রাথমিক স্বাস্থ্যসেবা দেওয়া হবে বলে জানান।
বিভিন্ন ক্যাম্প গুলোতে পানীয় জলের সংকট প্রখর। পিউরিপাইন মেশিনের মাধ্যমে পানি পরিশোধন করে ঘন্টায় এক হাজার লিটার খাবার পানি রোহিঙ্গাদের মাঝে বিতরণ করা হচ্ছে যা বেশ কিছুদিন অব্যাহত থাকবে। সংস্থার নিজস্ব তহবিল থেকে এই খরচ বহন করা হচ্ছে।
৮ সেপ্টেম্বর খাদ্য বিতরনে সংস্থার পক্ষে উপস্থিত ছিল সহকারী পরিচালক-মৌলিক কর্মসূচি তারেক সাঈদ হারুন, প্রকল্প ব্যবস্থাপক-সিডস জাহাঙ্গীর আলম, আঞ্চলিক কর্মসূচি সমন্বয়কারী মো: আলম,উর্ধ্বতন সমন্বয়কারী-প্রশাসন মো: ইউনুছ, মনসুর আলম,কোরবান আলী, মো: রফিক, সায়মুম,নূর মোহাম্মদ,নূর আহামদ প্রমূখ।
এদিকে, প্রতিদিন হাজার হাজার রোহিঙ্গা সীমান্ত পাড়িঁ দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করছে। রোহিঙ্গাদের জন্য নির্ধারিত ক্যাম্পে জায়গা না হওয়ার কারনে নতুন আগত অধিকাংশ রোহিঙ্গাদের জায়গা হয়েছে কুতুপালং থেকে শুরু করে থ্যংকখালী পর্যন্ত রাস্তার দুই পাশে। রাস্তার দুই পাশে ছোট ছোট শিশু, মহিলা এবং বয়স্ক লোকজন খাবার এবং চিকিৎসার অভাবে দিনাতিপাত করছে।স্থানীয় কিছু লোকজন এবং বিভিন্ন দেশী-বিদেশী এনজিও গুলো চাল,ডাল,শুকনো খাবার এবং নগদ অর্থ দিয়ে সহযোগীতা করে যাচ্ছে যা চাহিদার তুলনায় অপ্রতুল।

Top