cbn  

রিয়াজ উদ্দীন, পেকুয়া:

পেকুয়ায় কোস্টগার্ডের অভিযানে একটি ফিশিং বোট জব্দ করা হয়েছে । এ সময় দুটি দেশীয় তৈরী অস্ত্র উদ্ধারসহ একজন জলদস্যুকে আটক করার খবর পাওয়া গেছে। গত বৃহস্পতিবার গভীর রাতে উপজেলার রাজাখালী ইউনিয়নের সুন্দরীপাড়া আমিনবাজার জেটিঘাট থেকে এ সব জব্দ করে কোস্টগার্ড। আটককৃত ব্যক্তির নাম জসিম উদ্দিন। তিনি চট্রগ্রাম জেলার বাঁশখালী উপজেলার ছনুয়া ইউনিয়নের বাসিন্দা বলে জানা গেছে। আল্লাহর দান নামের ফিশিং বোট জব্দ করা হয়েছে। বোটটির মালিকের নাম নবী হোসেন। তিনি ছনুয়া ইউনিয়নের কবির সিকদারপাড়া এলাকার গোলাম হায়দারের ছেলে বলে জানা গেছে। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ওই দিন গভীর রাতে অভিযান পরিচালনা করে কোস্টগার্ড। এ সময় ছনুয়া নদীর আমিন বাজার জেটিঘাট থেকে দুটি অস্ত্রসহ বোটটি জব্দ করে। আটককৃত ব্যক্তি জলদস্যু বলে নিশ্চিত করেছে কোস্টগার্ড সদস্যরা।

স্থানীয়রা জানায়, আল্লাহর দান ফিশিং বোটের মালিকের বিরুদ্ধে মানবপাচার মামলা রয়েছে। বোটটি উপকুলে বেশ আলোচিত। গত কয়েক বছর ধরে সাগরপথে মানবপাচার হচ্ছিল। মানবপাচার সমুদ্রে দস্যুতাসহ নানা অপরাধ কর্মকান্ডে সক্রিয় থাকায় ওই ফিশিং বোটটি প্রশাসনের নজরদারীতে ছিল। ওই দিন ওই জেটিঘাট থেকে সেটি জব্দ হয়েছে।

কুতুবদিয়া থানার ওসি দিদারুল ফেরদৌস জানান, অস্ত্র আইনে মামলা হয়েছে। যার নং০৪/১৭।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •