চকরিয়ায় মাথায় কাফনের কাপড় পরে সওজ কর্মচারীদের বিক্ষোভ

আবদুল মজিদ, চকরিয়া:
চকরিয়ায় সড়ক ও জনপদ বিভাগের উপ-বিভাগীয় কার্যালয়ে শ্রমিক ইউনিয়নের কর্মচারীদের সরকারী কাজ করতে গিয়ে রাস্তায় হারিয়ে অনেক তাজাপ্রাণ।গত একবছরে চকরিয়ায় সওজের অস্থায়ী (মাষ্টার রুলে) কর্মচারী সড়ক ও জনপদ বিভাগের অধীনস্থ রাস্তা সংস্কার কাজে কর্মচারী আমির হোসেন, আবু তাহের ও সর্বশেষ ১৬জুলাই কামাল হোসেন সড়কে কাজ করার সময় ম্যাজিক গাড়ীর চাপায় নিহত হয়। কর্মচারীদের চাকুরী স্থায়ীকরণ ও সংস্থাপনের দাবীতে শ্রমিক ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দ ১৭জুলাই সোমবার চকরিয়া সড়ক ও জনপদ বিভাগের কার্যালয়ে সকল কর্মচারীগণ জড়ো হয়ে ৩দিনের কর্মসুচী ঘোষণা করেন।শ্রমিক ইউনিয়ন কর্মচারীদের ঘোষিত কর্মসুচী অংশ হিসেবে সকাল ১০টায় সওজ কার্যালয়ের সামনে অস্থায়ী কর্মচারীরা মাথায় কফিনের কাপড় পরে বিক্ষোভ করেন।এবং নিহতের স্মরণে কালো ব্যাচ ধারণ করে কর্মবিরতি পালন করেন।

এ সময় কর্মচারীদের বিভিন্ন দাবী,সুযোগ সুবিধা ও সমস্যা নিয়ে বক্তব্য রাখেন সড়ক ও জনপদ বিভাগের কক্সবাজার জেলা শ্রমিক ইউনিয়নের (সওজ) সিনিয়র সহ-সভাপতি মোঃ ইব্রাহীম।তিনি বলেন,সড়ক ও জনপদ বিভাগে (সওজ) অস্থায়ী ভিত্তিক(মাষ্টার রুল) চাকুরী নিয়ে সরকারি কাজ করতে গিয়ে এক বছরে তিন কর্মচারী প্রাণ হারিয়েছে।যারা প্রাণ হারিয়েছে এখনো পর্যন্ত সরকারী ভাবে কিংবা সড়ক ও জনপদ বিভাগের দপ্তর থেকে নিহতের পরিবারে কোন সাহায্যে এবং সহযোগীতা পায়নি।আজকে যারা নিহত হয়েছেন তাদের চাকুরী যদি স্থায়ী হতো তাহলে অপারপর সরকারী কর্মকর্তাদের মত সকল সুযোগ সুবিধা ভোগ করতে পারত।

তিনি আরো বলেন,সওজের কাজ করতে গিয়ে রাস্তায় আর কতো লাশ পড়লে চাকুরী স্থায়ীকরণ হবে।তাদের দাবী পুরণ না হওয়া পর্যন্ত এই আন্দোলন অব্যাহত থাকবে বলে তিনি জানান।কর্মচারীদের ঘোষাণাকৃত দাবীসমুহ বাস্তবায়নের জন্য সড়ক যোগাযোগ ও সেতু মন্ত্রী,সড়ক ও জনপদ বিভাগের সংশ্লিষ্ট উধ্বর্তন কর্তৃপক্ষ নিকট জরুরী হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

কক্সবাজার নিউজ সিবিএন’এ প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ সংবাদ

চট্টগ্রামে জলসা মার্কেটের ছাদে ২ কিশোরী ধর্ষণ, গ্রেপ্তার ৬

কোটালীপাড়ায় নিজ জমিতে অবরুদ্ধ ৬১ পরিবার : মই বেয়ে যাদের যাতায়াত

জামায়াত নেতা শামসুল ইসলামকে গ্রেফতারের প্রতিবাদ ও মুক্তি দাবী

দুর্ঘটনারোধে সচেতনতার বিকল্প নেই : ইলিয়াস কাঞ্চন

Google looking to future after 20 years of search

ইবাদত-বন্দেগিতে মানুষ যে ভুল করে

শেখ হাসিনাকে পাল্টা চ্যালেঞ্জ বি. চৌধুরীর

পর্যটকবান্ধব আদর্শ রাঙামাটি শহর গড়তে জেলা প্রশাসনের অভিযান চলছে

জামায়াত নেতা শামসুল ইসলামকে গ্রেফতারের প্রতিবাদ ও মুক্তি দাবী

ঈদগাঁও থেকে ৭ হাজার ইয়াবাসহ আটক ৩, বাস জব্দ

জুতায় লুকিয়ে পাচারের পথে ৩১০০ ইয়াবাসহ যুবক আটক

জাতিসংঘের হস্তক্ষেপের কোনও অধিকার নেই: মিয়ানমার সেনাপ্রধান

বৃহস্পতিবার ঢাকায় বিএনপির সমাবেশ

দাঁড়িয়ে প্রস্রাব করা কি শুধু ইসলামেই নিষেধ?

খুটাখালীর ব্যবসায়ী নুরুল ইসলামের ইন্তেকাল

যেভাবে ব্রাশ করলে দাঁতের ক্ষতি হয়

আমি সৌভাগ্যবান যে তোমাকে পেয়েছি : বিবাহবার্ষিকীতে মুশফিক

মালদ্বীপের বিতর্কিত নির্বাচনে বিরোধী নেতার জয়

ইমরান খানের স্পর্ধা আর মেধায় বিস্মিত মোদি

ফেসবুক লিডারশিপ প্রোগ্রামে নির্বাচিত হলেন বাংলাদেশের রাজীব আহমেদ