আমরা আর গৃহপালিত নই : এরশাদ

ডেস্ক নিউজ:
জাতীয় পার্টির (জাপা) চেয়ারম্যান এইচ এম এরশাদ বলেছেন, আমরা আর গৃহপালিত বিরোধী দল নই। জাতীয় পার্টি এখন প্রথম সারির দল।

মঙ্গলবার রাজধানীর ইমানুয়েলস সেন্টারে ঢাকা উত্তর জাপা আয়োজিত ঈদ পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।

এরশাদ বলেন, আগে আমরা সরকারের সব কাজের সমর্থন করে যেতাম। মানুষ আমাদের গৃহপালিত বিরোধী দল বলতো। কিন্তু ইসলামী মহা ঐক্যজোট গঠনের পর আমরা ঘুরে দাঁড়িয়েছি। জনগণ আমাদের নিয়ে নতুনভাবে চিন্তা করছে। এখন আর আমরা গৃহপালিত বিরোধী দল নই। এখন আমরা সামনের সারির দল।

আগামী নির্বাচনে জাপার ক্ষমতায় যাওয়ার সমূহ সম্ভাবনা রয়েছে মন্তব্য করে তিনি বলেন, জাপা ঘুরে দাঁড়িয়েছে। জাপাকে এখন গুণতে হবে। জাপা ছাড়া আগামী নির্বাচন হবে না। আমরা ঠিকমতো কাজ করতে পারলে আগামী নির্বাচনে ক্ষমতায় যাওয়ার যথেষ্ট সম্ভাবনা রয়েছে।

বাংলাদেশ অভিশপ্ত দেশে পরিণত হয়েছে উল্লেখ করে জাপা চেয়ারম্যান বলেন, প্রতিদিন মানুষ মরছে। কিছু দিন আগে হাওরে বন্যায় লাখ লাখ টন ধান নষ্ট হলো। সেখানকার মানুষ এখন না খেয়ে আছে। পাহাড় ধসে দেড় শ’ লোক মারা গেল। গতকাল বয়লার বিস্ফোরণে ৯ জন মারা গেল। চারদিক শুধু মৃত্যু আর মৃত্যু। এ অভিশাপ থেকে দেশকে মুক্ত করতে হলে পরিবর্তন প্রয়োজন। আর সেই পরিবর্তন আনতে পারে কেবল জাপা। ইসলামী মহা ঐক্যজোট গঠনের পর জাপার প্রতি জনগণের আস্থা বেড়েছে। আগামীতে জাপাই জনগণের ভরসার স্থল হভে বলে মন্তব্য করেন তিনি।

ঢাকা উত্তর জাপার সভাপতি এস এম ফয়সাল চিশতীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন জাপার সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান ও বিরোধী দলের নেতা রওশন এরশাদ, কো চেয়ারম্যান জিএম কাদের, মহাসচিব এবিএম রুহুল আমীন হাওলাদার, ঢাকা উত্তর জাপার সাধারণ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম সেন্টু ও ইসলামী মহা ঐক্যজোটের চেয়ারম্যান আবু নাসের ওয়াহেদ ফারুক।

সর্বশেষ সংবাদ

টেকনাফ পৌর আওয়ামী লীগের ৮নং ওয়ার্ড সভাপতি হানিফ সম্পাদক মোঃ আলমগীর

হোলি আর্টিজান হামলা মামলার রায় ২৭ নভেম্বর

কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের জরুরী সভা অনুষ্ঠিত

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অনুমোদন নেই, তবু কক্সবাজারে হচ্ছে সা’দ পন্থীদের ইজতেমা 

চকরিয়ায় মার্কেটের গলি দখল করে সিঁড়ি নির্মাণের চেষ্টা, ব্যবসায়ীদের বিক্ষোভ

রামু সরকারি কলেজের এইচএসসি ২০১৪ ব্যাচের বর্ণাঢ্য পূণর্মিলনী উৎসব সম্পন্ন

আপিলে প্রার্থীতা ফিরে পাবে সালাহ উদ্দীন কমল!

বাবরি মসজিদ : রায় বাতিল চেয়ে রিভিউ করবে মুসলিম ল বোর্ড

চকরিয়ায় সাংবাদিকের উপর হামলা, গ্রেপ্তার-১

‘জীবনঘনিষ্ঠ লেখার কারণেই হুমায়ূন আহমদ মানুষের হৃদয় স্পর্শ করতে পেরেছেন’

গ্যাস বিস্ফোরণে নিহত রামু’র এনি স্বামীর পছন্দের শাড়ীতেই বের হয়েছিল

হাইস্কুলে শিক্ষার্থীদের দেয়া হবে বিনামূল্যে কনডম!

জেলা বার সভাপতি ও সেক্রেটারির সাথে সিবিআইইউ বঙ্গবন্ধু আইন ছাত্র পরিষদের সৌজন্য সাক্ষাৎ

কক্সবাজার জেলা মুসলিম নিকাহ রেজিষ্ট্রার সমিতি অনুমোদন

পিএসসি পরীক্ষার প্রথমদিনে রাঙামাটিতে অনুপস্থিত ৩২০ শিক্ষার্থী; বহিস্কার-৪৬

শাপলাপুর ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে খালেক সহ ১৪ জনের মনোনয়ন বৈধ

রাঙামাটির সাড়ে ৬ লাখ মানুষের স্বাস্থ্য সেবায় ৭১ চিকিৎসক !

২৩ নভেম্বর আত্মসমর্পণ করছেন মহেশখালীর শতাধিক অস্ত্রের কারিগর ও জলদস্যু

পিএসসি-ইবতেদায়ী পরীক্ষা শান্তিপূর্ণ ভাবে শুরু হলো, জেলায় অনুপস্থিত ২৮৮৩

পেকুয়া উপজেলা পরিষদে জাহাঙ্গীর আলমকে বহালে হাইকোর্টের নির্দেশ