এম.জিয়াবুল হক, চকরিয়া

চকরিয়া উপজেলার ডুলাহাজারাস্থ বঙ্গবন্ধু সাফারি পার্কের ইজারাদার এবার সরকারি ছুটির দিনে সাফারি পার্কে টিকেট বিক্রি করে প্রায় সাড়ে ৪লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন। সরকারি ভাবে সপ্তাহের প্রতি মঙ্গলবার সাফারি পার্ক বন্ধ থাকার নির্দেশনা থাকলেও অভিযুক্ত ইজারদার নাছির উদ্দিন প্রভাব বিস্তার করে ঈদের পরদিন মঙ্গলবার সাফারি পার্কের গেইট খুলে টিকেট বিক্রি করেছেন। এতে সরকারের বিপুল টাকার রাজস্ব ক্ষতি হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন সাফারি পার্কের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা।

স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, ঈদের পরদিন মঙ্গলবার সরকারি ছুটির দিনে ইজারদার নাছির উদ্দিন ও তাঁর লোকজন প্রায় ২২ হাজার পাঁচশতটি টিকেট বিক্রি করেছেন। প্রতিটি টিকেট তাঁরা ২০ টাকা মুল্যে বিক্রি করে পর্যটক-দশানার্থীর কাছ থেকে সাড়ে ৪ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন। সরকারিভাবে ওইদিন সাফারি পার্কের কার্যক্রম বন্ধ থাকার পরিপত্র জারি থাকলেও অভিযুক্ত ইজারাদার তা আমলে নেয়নি। উল্টো সাফারি পার্কের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বাঁধার মুখে তাদেরকে অনেকটা জিন্মি করে তিনি (ইজারদার নাছির) এ ধরণের বেআইনি কাজটি করেছেন।

সাফারি পার্কের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা অভিযোগ করেছেন, ইজারদার নাছির উদ্দিন অনেকটা দাপট দেখিয়ে ছুটির দিনে সাফারি পার্ক খুলে টিকেট বিক্রি করেছেন। বিষয়টি আমরা প্রকৃতি সংরক্ষন বিভাগ চট্টগ্রামের বিভাগীয় বন কর্মকর্তাকে অবহিত করেছি।

এব্যাপারে জানতে চাইলে অভিযুক্ত ইজারাদার নাছির উদ্দিন মুঠোফোনে বলেন, সপ্তাহের প্রতি মঙ্গলবার সাফারি পার্ক সরকারিভাবে বন্ধ থাকার বিষয়টি সত্য। তবে ঈদের পরদিন মঙ্গলবার হওয়ায় ‘বিশেষ দিনের কোঠায়’ ওইদিন সাফারি পার্ক খোলা রেখে টিকেট বিক্রি করা হয়।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •