ঈদের ছুটিতে দর্শনার্থীদের উপচেপড়া ভিড় চকরিয়া বঙ্গবন্ধু সাফারি পার্কে

তৌহিদুল আরব, ডুলাহাজারা সাফারী পার্ক থেকে ফিরে,
কক্সবাজারের চকরিয়ায় ঈদের টানা ছুটিতে ডুলাহাজারা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কে অন্যান্য বছরের তুলনায় রেকর্ড সংখ্যক দর্শনার্থী সমাগম ঘটেছে। আবহাওয়ার পরিস্থিতি স্বাভাবিক থাকায় ঈদের ৩য় দিনেও ডুলাহাজারা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কে পর্যটকের উপচেপড়া ভীড় জমেছে। সোমবার ঈদের দিনের ন্যায় ২য় দিনেও একই চিত্র পাওয়া গেছে। ত্রিমূখী টিকিট কাউন্টারের দায়িত্বরত কর্মকর্তারা প্রতিদিন সকাল থেকে বিকেল বিরতিহীন ভাবে টিকেট বিক্রি করে যাচ্ছে। তবে মাঝে মধ্যে গুড়ি গুড়ি বৃষ্টি হওয়ায় দশনার্থীদের উপস্থিতি কমে আসতে পারে বলে ধারণা করছেন সচেতন মহল।
    ভ্রমণে আসা পর্যটকের সাথে কথা বলে জানা যায় গত বছরের চাইতে এবছর পার্কের অবস্থা অনেক পরিবর্তন হয়েছে পশু-পাখি বৃদ্ধি করা হয়েছে। পর্যটকের নিরাপত্তার জন্য আইন-শৃংঙ্খলা রক্ষাকারী বাহীনি টহল মোতায়েন করা হয়েছে। পার্কের আশে-পাশে কোন উন্নত মানের হোটেল রেস্টুরেন্ট না থাকায় বিপাকে পড়েছে ভ্রমনে আসা লোকজন। সাফারি পার্কের ইনচার্জ বিট কর্মকর্তা মাজাহারুল ইসলাম ছুটিতে থাকায় তার বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি। দায়িত্বরত কর্মকর্তা নুরুল হুদা জানান, গত বছরের তুলনায় এবছর অনেক বেশি দর্শণার্থী সমাগম ঘটেছে। পার্কের সার্বিক নিরাপত্তা জোরদার করতে বেশ কিছু পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। মঙ্গলবার সরেজমিন ঘুরে দেখা গেছে, পার্কের মাঝ দিয়ে চলে যাওয়া আঁকাবাঁকা সড়কের দুই পাশের গাছ-গাছালি, বনজঙ্গল ও বিশাল লেক ঘিরে হাজার হাজার দর্শনার্থী পশু-পাখি দেখতে ভিড় করেছে। পার্কে রয়েছে, বাঘ, সিংহ, হরিণ, হাতি, উটপাখি, সাম্বার, মযূর, সারস পাখি, উটপাখি, কুমির, জলহস্তী, মায়া হরিণ, চিতা হরিণ, ভাল্লুক,, খরঘোশ, অজগর, বন্যশুক্রর, বানর, কালো শিয়াল, উল্টোলেজী বানর, লাম চিতা, হনুমান, কচ্ছপ, প্রায় ৭০ প্রজাতির পশুপাখি।
বাংলাদেশ সরকারের পরিবেশ ও বণ মন্ত্রনালয় কর্তৃক ডুলাহাজারা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কটি ২০০৯ সালে প্রতিষ্টিত হয়। ডুলাহাজারা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কের সার্বিক অবকাঠামো উন্নয়নে দেশ-বিদেশ থেকে হরেক প্রজাতির প্রাণী সংগ্রহ করে এখানে সংরক্ষণ করা হয়েছে বলে জানান পার্ক ব্যবস্থাপনা ও সংরক্ষণ বিভাগ।
কক্সবাজার নিউজ সিবিএন’এ প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ সংবাদ

ক্ষমতায় গেলে সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান জাতীয়করণ করবে ঐক্যফ্রন্ট

“বিড়ালের গলায় মুক্তার মালা !”

লবণ উৎপাদনে স্বয়ংসম্পূর্ণতা অর্জনে গবেষণার বিকল্প নাই : বিসিক চেয়ারম্যান

চট্টগ্রামে দৈনিক কর্ণফুলী সম্পাদক আফসার উদ্দিন গ্রেফতার

চার দিনব্যাপী আয়কর মেলা সমাপ্ত, ৮০ লাখ ৫১ হাজার ৭৮০ টাকা রাজস্ব আদায়

নাইক্ষ্যংছড়িতে বীর বাহাদুরের পক্ষে একাট্টা

মাউশির নতুন মহাপরিচালক সৈয়দ গোলাম ফারুক

পৌর এলাকাকে ‘স্বাস্থ্যকর শহর’ করার ঘোষণা দিলেন মেয়র মুজিবুর রহমান

রাফিয়া আলম জেবা : অদম্য এক পিইসি পরীক্ষার্থী

ইসলামাবাদ থেকে অস্ত্রসহ যুবক গ্রেফতার

#METOO নারীর ভয়ঙ্কর কষ্টের কথা

সারাদেশে অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার অভিযান শুরু : চকরিয়ায় আইজিপি

৫২টি নভেম্বর পেরিয়ে ৫৩তে পদার্পণ চবির

মনোনয়ন আবেদন বিক্রি করে বিএনপি আ’লীগের আয় ২৬ কোটি টাকা

হিজড়াদের ৮ বিভাগে ৮টি সংরক্ষিত আসন দাবী

৩০ নভেম্বরের মধ্যে বিনা জরিমানায় আয়কর রিটার্ন জমা দেয়া যাবে

চট্টগ্রামের কর্ণফুলীতে পুনরায় মাল্টি চ্যানেল স্লিপওয়ে নির্মাণ শুরু

স্কুল,কলেজ ফাঁকি দিয়ে শিক্ষার্থীরা কি করে দেখার আহবান মেয়র নাছিরের

পল্টন থানার তিন মামলায় মির্জা আব্বাস ও আফরোজা আব্বাসের আগাম জামিন

মহেশখালীতে বন্দুক ও কাতুর্জসহ মানবপাচার মামলার আসামী গ্রেফতার