টেকনাফে ২৪টি অফিসে কর্মকর্তা অনুপস্থিত

হাফেজ মুহাম্মদ কাশেম, টেকনাফ :

ঈদের পর টেকনাফ উপজেলায় ২৮ জুন প্রথম কর্মদিবসে ২৪টি সরকারী অফিসে কর্মকর্তা অনুপস্থিত রয়েছেন। তম্মধ্যে ১৪টি অফিস সম্পুর্ণ তালাবদ্ধ ছিল। অবশ্য ৯টি কার্যালয়ে অফিস প্রধান তথা কর্মকর্তা উপস্থিত না থাকলেও অন্ততঃ অফিস খোলা ছিল। বুধবার ২৮ জুন প্রথম কর্মদিবসের সকাল সাড়ে ১০টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত সরেজমিন পরিদর্শন করে এ চিত্র মিলেছে। তবে টেকনাফ উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব জাফর আহমদ ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার জাহিদ হোসেন সিদ্দিক কর্মস্থলে উপস্থিত ছিলেন।

প্রথম দিন কর্মস্থলে অনুপস্থিত কর্মকর্তাগণ হলেন সহকারী কমিশণার (ভুমি), উপজেলা প্রাণী সম্পদ অফিসার, উপজেলা কৃষি অফিসার, সিনিয়র উপজেলা মৎস্য অফিসার, উপজেলা মহিলা বিষয়ক অফিসার, উপজেলা যুব উন্নয়ন অফিসার, উপজেলা সমবায় অফিসার, উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অফিসার, উপজেলা নির্বাচন অফিসার, মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার, একাডেমিক সুপারভাইজার, উপজেলা প্রকৌশলী, প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিসার, উপজেলা সমাজ সেবা অফিসার, উপজেলা হিসাব রক্ষণ অফিসার, প্রদর্শনী চিংড়ি খামারের সহকারী পরিচালক, ভারপ্রাপ্ত গুদাম কর্মকর্তা (ওসি এলএসডি), উপজেলা পল্লী উন্নয়ন অফিসার, পল্লী জীবিকায়ন প্রকল্পের কর্মকর্তা, উপজেলা জনস্বাস্থ্য উপ-সহকারী প্রকৌশলী, ইপিআই, ওসিসি।

টেকনাফ উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব জাফর আহমদ, উপজেলা নির্বাহী অফিসার জাহিদ হোসেন সিদ্দিক, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসার, উপজেলা শিক্ষা অফিসার, উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা অফিসার, একটি বাড়ি একটি খামার প্রকল্পের উপজেলা সমন্বয়কারী, আনসার-ভিডিপি অফিসার কর্মস্থলে উপস্থিত ছিলেন।

অফিস প্রধান তথা কর্মকর্তা উপস্থিত না থাকলেও অন্ততঃ অফিস খোলা ছিল ৯টি। তা হচ্ছে সহকারী কমিশণার (ভুমি), উপজেলা প্রাণী সম্পদ অফিস, সাব রেজিস্টার অফিস, যুব উন্নয়ন অফিস, এলজিইডি, প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিস, সমাজ সেবা অফিস, ভারপ্রাপ্ত গুদাম কর্মকর্তা (ওসি এলএসডি), হিসাব রক্ষণ অফিস।

সম্পুর্ণ তালাবদ্ধ ছিল উপজেলা পল্লী উন্নয়ন অফিসার, পল্লী জীবিকায়ন প্রকল্পের কর্মকর্তা, উপজেলা জনস্বাস্থ্য উপ-সহকারী প্রকৌশলী, ইপিআই, ওসিসি, উপজেলা কৃষি অফিস, সিনিয়র উপজেলা মৎস্য অফিস, উপজেলা মহিলা বিষয়ক অফিস, উপজেলা সমবায় অফিসার, উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অফিসার, মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার, একাডেমিক সুপারভাইজার, উপজেলা নির্বাচন অফিস।

সরেজমিন পরিদর্শনকালে দেখা গেছে উপজেলা পরিষদের পুরাতন ভবনে সিনিয়র উপজেলা মৎস্য অফিস, উপজেলা সমবায় অফিসার, উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অফিসার, মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার, একাডেমিক সুপারভাইজার এই ৬ জন কর্মকর্তার কার্যালয় রয়েছে। পুরো ভবনই তালাবদ্ধ।

এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে টেকনাফ উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব জাফর আহমদ বলেন টেকনাফের কয়েকটি সরকারী দপ্তরে কর্মকর্তা নেই। একজন কর্মকর্তা একাধিক উপজেলায় দায়িত্ব পালন করেন। তাছাড়া ঈদের ছুটিতে গিয়ে হয়ত কিছুটা বিলম্ব হচ্ছে।

কক্সবাজার নিউজ সিবিএন’এ প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ সংবাদ

টেকনাফ উপজেলা যুবদলের সম্মেলনকে ঘিরে প্রাণচাঞ্চল্য : চাপিয়ে দেয়া কমিটি মানবে না!

 বিচার শুরুর অপেক্ষায় খালেদা জিয়ার আরও ৭ মামলা

অক্টোবর থেকে সেন্টমার্টিনে জাহাজ চলাচল শুরু

প্রধানমন্ত্রীকে আল্লামা শফীর অভিনন্দন

রাত ১০-১১টার পর ফেসবুক বন্ধ চান রওশন এরশাদ

আফগানদের কাছে বাংলাদেশের শোচনীয় পরাজয়

আজ পবিত্র আশুরা

দেশের স্বার্থেই ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন : প্রধানমন্ত্রী

সরকারের শেষ সময়ে আইন পাসের রেকর্ড

রাঙ্গামাটিতে ঘুম থেকে তুলে দু’জনকে গুলি করে হত্যা

শেখ হাসিনার গুডবুক ও দলীয় হাই কমান্ডের তরুণ তালিকায় যারা

মালয়েশিয়ার শ্রমবাজার নিয়ে ‘ধোঁয়াশা’ কাটবে এ মাসেই

বিষাদময় কারবালার ইতিহাস

পবিত্র আশুরা : সত্যের এক অনির্বাণ শিখা

নবাগত জেলা জজ দায়িত্ব গ্রহন করে কোর্ট পরিচালনা করলেন

নজিব আমার রাজনৈতিক বাগানের প্রথম ফুটন্ত ফুল- মেয়র মুজিবুর রহমান

কক্সবাজার ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটিতে  “শুদ্ধ উচ্চারণ, আবৃত্তি, সংবাদপাঠ ও সাংবাদিকতা” বিষয়ক প্রশিক্ষণ কর্মশালা 

রামুর কচ্ছপিয়াতে রুমির বাল্য বিবাহের আয়োজন

সরকার শিক্ষাকে সর্বাধিক গুরুত্ব দিয়েছে- এমপি কমল

আইসক্রিমের নামে শিশুরা কী খাচ্ছে?