কক্সবাজার জেলা পুলিশের ত্রাণ পেলো ৮ শতাধিক মানুষ

শাহজাহান চৌধুরী শাহীন:

কক্সবাজার জেলা পুলিশের উদ্যোগে সদর উপজেলার উপকূলীয় ইউনিয়ন পোকখালীর গোমাতলী , টেকনাফ ও সদরের খুরুস্কুল এলাকায় মোরার আঘাতে বিপন্ন মানুষের মাঝে জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে ত্রাণ বিতরণ করা হয়েছে।

অসহায়, পানিবন্দি ও মোরায় ক্ষতিগ্রস্ত শতাধিক নারী পুরুষ রোজার দিনে পুলিশের দেয়া ত্রাণ পেয়ে মহা খুশি। বুধবার ২১ জুন দুপুরে পোকখালী ইউনিয়নের পশ্চিম গোমাতলী সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে ত্রাণ বিতরণ কালে প্রধান অতিথি ছিলেন, চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি এসএম মনির উজ্জামান (বিপিএম,পিপিএম)।

কক্সবাজার পুলিশ সুপার ড.একেএম ইকবাল হোসনের সভাপতিত্বে এবং ঈদগাঁও পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের সার্বিক ব্যবস্থাপনায় ত্রাণ বিতরণ কালে উপস্থিত ছিলেন, কক্সবাজারের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আফরুজুল হক টুটুল, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) রুহুল কুদ্দুস, সহকারী পুলিশ সুপার (চকরিয়া সার্কেল) কাজী মতিউল ইসলাম,কক্সবাজার সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) রনজিত কুমার বড়–য়া, চকরিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) বখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরী, জেলা আওয়ামী লীগ সাংগঠনিক সম্পাদক নাসরিন সরওয়ার কাবেরী, জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান সোহেল জাহান চৌধুরী, ঈদগাঁও পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রে ইনচার্জ পরির্দশক খায়রুজ্জামান, পোকখালী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রফিক আহমেদ, ঈদগাঁও পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের এসআই দেবাশীষ সরকার, ইসলামাবাদ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম এমইউপি, ঈদগাঁও রিপোর্টাস সোসাইটির সভাপতি এম আবু হেনা সাগর, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ড জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক নুরুল হাকিম নুকী, উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের সদস্য, গ্রামপুলিশ সহ সুশীল সমাজের লোকজন অংশ নেন।

ত্রাণ নিতে আসা ছমি উদ্দিন (৫০) বলেন, এই প্রথম কোন ত্রাণ পেয়েছি। ত্রাণ পেয়ে তিনি আনন্দিত। তার মতো উপকূলীয় এলাকা পোকখালী গোমাতলীর অসহায় মানুষগুলো বৃহৎ পরিসরে এই প্রথম বারের মত পুলিশের কাছ থেকে ত্রাণ পেয়ে মহা খুশি। তিনি পুলিশের মহৎ এ উদ্যোগকে সাধুবাদ জানান।

প্রসংগত, মোরার আঘাত সহ প্রাকৃতিক দূর্যোগে বিপর্যস্ত উপকূলীয় এলাকা পোকখালী গোমাতলির মানুষ। বেঁড়িবাঁধ ভেঙ্গে যাওয়ায় অনেক স্থানে চলছে জোয়ার ভাটা। অনেক পরিবার পানিবন্দি হয়ে মানবেতর জীবন কাটাচ্ছে।

এদিকে, ২১ জুন দুপুরে একই সময় টেকনাফে দুইশত দুঃস্থ পরিবারের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেন বাংলাদেশ পুলিশ। চট্টগ্রাম ডিভিশন পুলিশের ডিআইজি এসএম মনির উজ্জামানের পক্ষে সহকারী পুলিশ সুপার (উখিয়া-টেকনাফের সার্কেল) চাইলাউ মারমা এসব দুঃস্থদের মাঝে এসব ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করেন।

এসময় টেকনাফ মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মাঈন উদ্দিন খাঁন, সাবরাং ইউপি চেয়ারম্যান নুর হোসেন, যুবলীগ নেতা আবুল কালামসহ গণমাধ্যম কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

এছাড়া কক্সবাজার সদরের খুরুষ্কুল ইউনিয়নের আরো ১০০ দুঃস্থ পুরুষ ও নারীর মাঝে ডিআইজি মনির উজ্জামানের পক্ষে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেন পুলিশ। ত্রাণ সামগ্রীর মাঝে ছিল, চাল, ডাল, তেল, ছোলা, চিনি ও সেমাই।

বাংলাদেশ পুলিশের ইফতার বাবদ বরাদ্ধকৃত অর্থ দিয়ে ঘুর্ণিঝড় মোরায় ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে বলে পুলিশ সুত্রে জানা গেছে।

———-

সর্বশেষ সংবাদ

রোহিঙ্গাদের চাপে পানের দাম চড়া

পুলওয়ামায় ফের জঙ্গি হামলায় ৪ সেনা নিহত

প্রধানমন্ত্রীর কাছে মহেশখালীর ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের ৮ দাবি

বাংলাদেশ-আমিরাত চারটি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর

কক্সবাজার সদরে এসিল্যান্ড শূন্যতায় ভোগান্তি

পুনর্বাসন চায় মহেশখালীর মানুষ

‘নিয়ম ছিল না বলেই বদি আমন্ত্রণ পাননি’

দায়িত্বশীল ছাড়া কারও ডাকে সাড়া নয়

দেশের কোন গোয়েন্দা সংস্থার কী কাজ

কাশ্মিরে নিরাপত্তা বাহিনীর ওপর আবারও হামলা, সেনা কর্মকর্তাসহ নিহত ৬

ই-ফাইলিং এ কক্সবাজার জেলা প্রশাসন সারাদেশে দ্বিতীয়

নাফে মাছ ধরার অনুমতি ও ইয়াবা বন্ধে সীমান্তে কাঁটাতারের বেড়া দিন : এমপি শাহীন আক্তার

সিবিএন এর প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে সৌদি প্রবাসী বিএনপি নেতা ফরিদের শুভেচ্ছা

এমপি বদি’র সাথে ইউএই টেকনাফ সমিতি’র সৌজন্য সাক্ষাৎ

চাকরিচ্যুতির ভয় দেখিয়ে উপজাতি এনজিও কর্মীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ 

বন্ধ হলো অনলাইনে জুয়া খেলার ১৭৬ সাইট

শাজাহান খানকে সংসদে বেশি কথা বলতে দেয়ায় প্রতিবাদ

যুদ্ধ বিমানের প্রহরায় পাকিস্তানে নামলেন সৌদি যুবরাজ

অনুমোদন পেল আরও তিন ব্যাংক

আ’লীগের ভাবমুর্তি উজ্জ্বল করতে জনগনের সমর্থন চাই : ফজলুল করিম সাঈদী