বিশেষ প্রতিবেদক
টেকনাফের হ্নীলা মৌলাভীবাজার মরিচ্যাঘোনা এলাকায় বাড়ীতে ঢুকে দুর্বৃত্তদের কুপোঘাতে ক্ষতবিক্ষত হলো জালাল উদ্দিন নামে এক কৃষক। বুধবার (২ মে) সকাল ৮টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। আহত জালাল উদ্দিন ওই এলাকার মৃত আব্দুশ শুক্কুরের ছেলে।
তাকে মূমুর্ষ অবস্থায় উদ্ধার করে জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তার মাথা থেকে শরীরের বিভিন্ন অংশে অন্তত ১০টি সেলাই করা হয়েছে। তার অবস্থা অশংকাজনক বলে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা জানিয়েছে।
আহতের স্বজনেরা জানায়, ক্ষেত নষ্ট করার অভিযোগে গত কয়েক দিন আগে স্থানীয় মীর কাসেমের ছেলে নুরুল আমিনের একটি গরু বেঁধে রাখে জালাল উদ্দিন। এ নিয়ে দুই পরিবারের মধ্যে রেশারেশি শুরু হয়। ঘটে বাকবিতন্ডার ঘটনাও।
স্থানীয় প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছে, ঘটনার দিন সকালে নুরুল আমিন, তার ভাই খাইরুল আমিন, আব্দুল আমিন, শফিকুল আলম, বাবুল, মুহাম্মদ করিম, পুতিয়া ও মু. আলীসহ আরো কয়েকজন জালাল আহমদের বাড়ীতে ঢুকে এলোপাতাড়ী কুপোঘাত করতে থাকে। তার আর্তচিৎকারে এলাকাবাসী এগিয়ে গেলে অস্ত্র উচিতে তারা পালিয়ে যায়।
ঘটনার বিষয়ে জানতে টেকনাফ মডেল থানার ওসি মোঃ মাঈনুদ্দিন খানকে ফোন করলে পাওয়া যায়নি।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •