শহরের পাহাড়তলীতে বসতভিটা দখল মরিয়া সন্ত্রাসীরা, হামলায় মহিলাসহ আহত ৩

বিশেষ প্রতিবেদক
কক্সবাজার শহরে পাহাড়তলী সাত্তারঘোনায় কারান্তরীণ এক ব্যক্তির বসতভিটা দখলে মরিয়া হয়ে উঠেছে এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাসীরা। এরই মধ্যে কয়েক দফা দখলের অপচেষ্টা চালিয়েছে। এতে বাধা দেয়ায় সশস্ত্র হামলা চালিয়ে বৃদ্ধাসহ দু’মহিলাসহ তিনজনকে গুরুতর জখম করেছে সন্ত্রাসীরা। ২৮ এপ্রিল এই হামলা চালানো হয়। হামলায় আহতরা হলেন, ওই এলাকার বাসিন্দা কারান্তরীণ ছৈয়দ আলম প্রকাশ হাতকাটা ছৈয়দ আলমের স্ত্রী সনজিদা বেগম, মা মনোয়ারা বেগম ও বাবা আবদু শুক্কুর। এ ঘটনায় সনজিদা বেগম বাদি হয়ে কক্সবাজার সদর মডেল থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।
অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, পাহাড়তলী সিরাজের ঘোনার সিরাজুল হকের পুত্র ফজল আহামদ, সাত্তারঘোনার বর্মাইয়া ইউসুফ, হাফেজ আহামদ, জিয়ানগরের তৈয়বা বেগম, শাকের, জাবেদ, ইসলামপুরের বর্মাইয়া শাহ আলম, মনিউজ্জামান ও সোনা মিয়াসহ একদল সন্ত্রাসী দীর্ঘ দিন ধরে কারান্তরীণ ছৈয়দ আলমের পরিবারের সাথে শত্রুতা করে আসছে। এই সন্ত্রাসীরাই যোগসাজস করে ছৈয়দ আলমের দু’হাত কেটে নিয়েছিল। তারপরও তারা ক্ষান্ত হয়নি। এক পর্যায়ে ছৈয়দ আলমকে ফাঁসাতে একটি হত্যা মামলায় তাকে আসামী করে ওই সন্ত্রাসীরা। এই মামলায় গ্রেফতার হয়ে বর্তমানে কক্সবাজার কারাগারে বন্দি রয়েছে ছৈয়দ আলম।
ছৈয়দ আলমের স্ত্রী সনজিদা বেগম অভিযোগ করে জানান, ছৈয়দ আলম জেলে গেলে সন্ত্রাসীরা তাদের বসতভিটার উপর কুনজর দেয়। তারা ছৈয়দ আলমের বসভিটাটি দখলে মরিয়া হয়ে উঠেছে। দখল করতে এরই মধ্যে কয়েক দফা সশস্ত্র হামলা চালিয়েছে। সর্বশেষ ২৮ এপ্রিল সন্ত্রাসীরা এক দুর্ধর্ষ হামলা চালায়। হামলা চালিয়ে তারা ছৈয়দ আলমের বসতবাড়ি ভেঙে দিয়েছে। এসময় হামলা বাধা দেয়ায় ছৈয়দ আলমের স্ত্রী সনজিদা, মা ও বাবাকে বেদড়ক মারধর করে। এতে তারা গুরুতর জখমপ্রাপ্ত হয়।
ভুক্তভোগী সনজিদা কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলেন, ‘এলাকার সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করায় আমার স্বামী ছৈয়দ আলমের দু’হাত কেটে নিয়েছে সন্ত্রাসীরা। এরপরও তাদের জুলুম থেকে আমাদের রক্ষা হচ্ছে না। এখন আমার স্বামী না থাকায় সন্ত্রাসী আমাদের বসতভিটা দখলের জন্য মরিয়া হয়ে উঠেছে। বর্তমানে আমরা চরম অসহায় হয়ে দিন যাপন করছি। আমি এ ব্যাপারে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করছি।’

কক্সবাজার নিউজ সিবিএন’এ প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ।

সর্বশেষ সংবাদ

অপরাধ দমনে চট্টগ্রামে আইপি ক্যামেরা বসাচ্ছে সিএমপি পুলিশ 

বিশ্ব ইজতেমা স্থগিত হয়নি: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়

রামুতে ৩৮ হাজার ইয়াবার ট্রাক সহ আটক ২

খুরুস্কুল বাসীকে কাঁদিয়ে চির বিদায় নিল মেধাবী ছাত্র মিশুক

টেকনাফে অভিযানেও থামছে না ৩ ভাইয়ের ইয়াবা বানিজ্য

পেকুয়ায় চাঁদার দাবীতে দোকান সংস্কারে বাধা ও ভাংচুর

গণমাধ্যম ও সাংবাদিকদের সহযোগিতা চেয়েছেন মেয়র মুজিবুর রহমান

চকরিয়ায় সুরাজপুর আলোকশিখা পাঠাগার’র চিত্রাংকন প্রতিযোগিতা পুরস্কার বিতরণ ও গুণীশিক্ষক সংবর্ধনা

কক্সবাজার ক্রীড়া লেখক সমিতির কমিটি গঠিত

সাংবাদিক বশিরের মাতার জানাযা সম্পন্ন বিভিন্নমহলের শোক

বিজিবি ক্যাম্প এলাকায় সরকারের উন্নয়ন কর্মকান্ডের প্রামান্য চিত্র প্রদর্শন

টেকনাফ সাংবাদিক ফোরাম’র আহবায়ক কমিটি গঠিত

কক্সবাজার-৩ আসনে বিএনপির মনোনয়নপত্র জমা দিলেন অধ্যাপক আজিজ

“দুখরে রোগে ও ভয় পায়!”

নিরাপদ জীবনে ফিরতে চায় ইয়াবা ব্যবসায়ীরা

রোববার থেকে বিএনপির সাক্ষাৎকার শুরু

মিয়ানমারে শতাধিক রোহিঙ্গা গ্রেফতার

বিএনপি নেতা আবু সুফিয়ান (চট্টগ্রাম-৮) আসনে মনোনয়নপত্র নিলেন

কক্সবাজার-২ আসনে কারাবন্দী আবুবকরের পক্ষে মনোনয়ন ফরম জমা

ঈদগাঁওতে ইউনিক পরিবহন ও টমটমের মুখোমুখি সংঘর্ষে আহত ৪