অনলাইন ডেস্ক: পাবনার রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের প্রথম ইউনিটে আজ রোববার, ১০ অক্টোবর, বসছে বহুল প্রতীক্ষিত পারমাণবিক চুল্লিপাত্র তথা নিউক্লিয়ার রিঅ্যাক্টর প্রেশার ভ্যাসেল। যাকে পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের হৃৎপিণ্ড বলা হয়। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বেলা ১১টায় ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এটি উদ্বোধন করবেন। ঈশ্বরদী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পিএম ইমরুল কায়েস বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

জানা যায়, গত বছরের অক্টোবরে রূপপুর কেন্দ্রের প্রথম ইউনিটের জন্য এ রিঅ্যাক্টর প্রেশার ভ্যাসেলটি দেশে পৌঁছে। ভ্যালেসটি জলপথে ১৪ হাজার কিলোমিটার পথ পাড়ি দিয়ে রাশিয়া থেকে বাংলাদেশে আনা হয়। এতদিন সেটি স্থাপনের জন্য প্রয়োজনীয় বিভিন্ন অবকাঠামো প্রস্তুত করা হয়।

পারমাণবিক চুল্লিটির ওজন ৩৩৩ দশমিক ৬ টন। পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ অংশ এই রিঅ্যাক্টর প্রেশার ভ্যাসেল। এখানেই থাকে চুল্লির মূল জ্বালানি। এখান থেকেই বিদ্যুৎ সাপ্লাই হয়। কৃষ্ণ সাগর ও সুয়েজ খাল পাড়ি দিয়ে এটিকে বাংলাদেশের মোংলা বন্দরে আনা হয়। সেখান থেকে নদীপথে ঈশ্বরদীর পাকশীর পদ্মা নদী হয়ে রূপপুরে নেওয়া হয়।

এদিকে, চুল্লিটির উদ্বোধন উপলক্ষে যাবতীয় প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে। এ বিষয়ে রূপুপর প্রকল্পের সাইট ইনচার্জ ও প্রিন্সিপাল অ্যাডমিন রুহুল কুদ্দুস বলেন, উদ্বোধনী অনুষ্ঠান ঘিরে প্রকল্পের ভেতরে ও বাইরে সকল ধরনের প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে। প্রস্তুত রাখা হয়েছে চুল্লির যাবতীয় সরঞ্জামাদি।

অন্যদিকে, পাবনার জেলা প্রশাসক, ডিসি, বিশ্বাস রাসেল হোসেন জানান, পরমাণু চুল্লি উদ্বোধনের জন্য যাবতীয় প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। এ উপলক্ষে বাড়তি নিরাপত্তার ব্যবস্থা করতে সংশ্লিষ্ট প্রশাসনকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •