মোঃ জয়নাল আবেদীন টুক্কু:
আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনকে সামনে রেখে রামুর গর্জনিয়ায় ক্ষমতাসীন আওয়ামীলীগের নৌকা প্রতীক পেতে জোর লড়াই চলছে। তৃতীয় দফায় আগামী ১১ নভেম্বর নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। নির্বাচন যতই ঘনিয়ে আসছে ততই চেয়ারম্যান প্রার্থীরা লবিং করছে এবং জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের ক্ষমতাসীন দলের র্শীষ নেতাদের নিয়ে বর্তমানে অবস্থান করছে ঢাকায়।

এদিকে উপজেলার গর্জনিয়া ইউনিয়নে বর্তমান চেয়ারম্যান সৈয়দ নজরুল ইসলাম শক্তিশালী প্রার্থী হিসাবে মাঠে রয়েছে। তিনি যদিওবা স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে বিজয়ী লাভ করেছিলেন। তবে এবার তিনিসহ নৌকা প্রতীকের জন্য ৮ জন প্রার্থী জোর লবিং করছে বলে একটি সূত্রে খবর পাওয়া গেছে। তারা নৌকা না পেলে নির্বাচন থেকে বিরত থাকবেন বলে এমন কথাও জানা গেছে। আগামী ১১ নভেম্বর গর্জনিয়া ইউপি নির্বাচনের দলীয় ফরম সংগ্রহ করেছেন বর্তমান চেয়ারম্যান ও গত বার নৌকা প্রতীক এর বিদ্রোহি প্রার্থী হয়ে নির্বাচিত বর্তমান চেয়ারম্যান সৈয়দ নজরুল ইসলাম, ইউনিয়ন আওয়ামিলীগ সভাপতি ইউসুফ মেম্বার,সাবেক সভাপতি বাবুল চৌধুরী,জেলা ছাত্রলীগ নেতা ও ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক হাফিজুল ইসলাম চৌধুরী, আওয়ামিলীগ নেতা ইয়াহিয়া চৌধুরী, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা ও বর্তমান আওয়ামিলীগ নেতা ইস্কান্দর মির্জা, ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি হুমায়ূন কবির চৌধুরী, ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি মিজানুর রহমান।

এ ইউনিয়নে একবারের চেয়ারম্যান প্রার্থীর মধ্যে সৈয়দ নজরুল ইসলাম, হাফিজুল ইসলাম চৌধুরী, ইয়াহিয়া চৌধুরী, হুমায়ুন কবির চৌধুরী, মিজানুর রহমান ও ইস্কান্দার মির্জা, কক্সবাজারের জনপ্রিয় সংসদ সদস্য সাইমুম সরওয়ার কমলের আস্থাভাজন হিসাবে পরিচিত। অপরদিকে রামু উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামিলীগের সভাপতি সাংসদ কমলের বড় ভাই সোহেল সরওয়ার কাজলের আস্থাভাজন হিসেবে পরিচিত ইউনিয়ন আওয়ামিলীগের সভাপতি ইউসুফ মেম্বার, সাবেক সভাপতি বাবুল চৌধুরী বলে একটি সূত্রে জানা যায়। তবে যেই প্রার্থী দলীয় মনোনয়ন পাবে তার পক্ষে কাজ করার ঘোষনাও দিয়েছেন তারা জেলা আওয়ামিলীগের কাছে। এ ৮ জনের মধ্যে সর্বশেষ কে হচ্ছেন নৌকার মাঝি এ অপেক্ষায় গর্জনিয়া ইউনিয়নের ভোটাররা।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •