প্রেস বিজ্ঞপ্তি :

আগামী দিনগুলোতে কর্মক্ষেত্রসহ সকল মানবিক কার্যক্রমে পুরুষের পাশাপাশি নারীদের সমান সুযোগ ও অংশীদারিত্বের বিষয়টিকে সর্বাধিক গুরুত্ব দিয়ে কর্মপরিকল্পনা সাজাচ্ছে বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা ব্র্যাক। এই নিয়ে কর্মীদেরকে আরও সচেতন করতে ভবিষ্যতে অ্যাডভোকেসি কার্যক্রম জোরালো করা হবে।

আজ বুধবার সকালে (১ লা সেপ্টেম্বর, ২০২১) কক্সবাজারের পৃথক দুটি হোটেলে ‘মানবিক কার্যক্রমে জেন্ডার মেইনস্ট্রিমিং বিষয়ে স্থানীয় সহযোগী সংস্থার দক্ষতা উন্নয়নমূলক’ শীর্ষক প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠানে এ তথ্য তুলে ধরা হয়। অষ্ট্রেলিয়া সরকারের অর্থায়নে ব্র্যাকের মানবিক সহায়তা কর্মসূচি (এইচসিএমপি) দুই দিন ব্যাপী এই প্রশিক্ষণের আয়োজন করে। এর মূল উদ্দেশ্য-মানবিক কার্যক্রমে জেন্ডার মেইনস্ট্রিমিং বা মূলধারাকরণের কার্যক্রমকে জোরদার করা। এর পাশাপাশি কর্মক্ষেত্রে নারী-পুরুষের সমান সুযোগ ও অংশগ্রহণ নিশ্চিত করা। আজ থেকে শুরু হওয়া এই প্রশিক্ষণ শেষ হবে আগামীকাল বৃহস্পতিবার (২ই সেপ্টেম্বর) ।

এতে প্রশিক্ষণার্থী হিসেবে ব্র্যাকের ছয়টি পার্টনার এনজি থেকে সিনিয়র ও মাঠ পর্যায়ের কর্মীরা অংশ নেন। ব্র্যাকের এই পার্টনার এনজিওসমূহ হচ্ছে: সোসাইটি ফর হেলথ এক্সটেনশন অ্যান্ড ডেভলপমেন্ট (শেড-SHED), প্রোগ্রাম ফর হেলফলেস অ্যান্ড ল্যাগেড সোসাইটিজ (পালস-PHALS), অ্যালায়েন্স ফর কো অপারেশন এইডস বাংলাদেশ (অ্যাকলাব-AKLAB), জাগো নারী উন্নয়ন সংস্থা (জেনাস-JNUS)), নোঙর (NONGOR) ও হেলপ-কক্সবাজার।

প্রশিক্ষণে সেশন পরিচালনাকারী হিসেবে ছিলেন ব্র্যাকের এইচসিএমপি’র আওতাধীন জেন্ডার, জাস্টিস অ্যান্ড ডাইভারসিটি (জিজেডি) কর্মসূচির আঞ্চলিক ম্যানেজার মো: হামিদুল হক, একই কর্মসূচির মালবিকা সরকার চৈতি, মো: নাহিদুজ্জামান, নিলুফা ইয়াসমিন। প্রশিক্ষণ সেশনে সহযোগী হিসেবে ছিলেন ব্র্যাকের প্রধান কার্যালয়ের জিজেডি কর্মসূচির প্রোগ্রাম ম্যানেজার তানজিমা জামান ও কক্সবজারের আঞ্চলিক কার্যালয়ের একই কর্মসূচির টেকনিক্যাল ম্যানেজার সুব্রত কুমার শর্মা।

আলোচনায় অংশ নিয়ে ব্র্যাক এর মানবিক সহায়তা কর্মসূচির (এইচসিএমপি) এরিয়া ডিরেক্টর হাসিনা আখতার হক বলেন, বর্তমান সময়ে কর্মক্ষেত্রে নারী-পুরুষের সমতার বিষয়টি এখন অপরিহার্য বিষয়। ব্র্যাক সুবিধাবঞ্চিত জনগোষ্ঠীর উন্নয়নের পাশাপাশি এখন কর্মক্ষেত্রে নারী-পুরুষের সমান সুযোগ, বিশেষত নারীদের সক্ষমতা ও দক্ষতা উন্নয়নকে অগ্রাধিকার দিচ্ছে। এই ধরণের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে কর্মীরা যাতে আরও সচেতন হয় সেজন্য ভবিষ্যতে আরও অ্যাডভোকেসি কার্যক্রম গ্রহণ করবে ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •