কক্সবাজারে ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যতার মধ্য দিয়ে শুভ জন্মাষ্টমী উদযাপন

শ্রীকৃষ্ণ আজীবন শান্তি মানবপ্রেম ও ন্যায়ের পতাকা সমুন্নত রেখেছেন-জেলা প্রশাসক

প্রকাশ: ৩০ আগস্ট, ২০২১ ০২:১২

পড়া যাবে: [rt_reading_time] মিনিটে


এম. এ আজিজ রাসেল :
কক্সবাজার জেলায় ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যতার মধ্য দিয়ে স্বাস্থ্যবিধি মেনে উদযাপিত হয়েছে শুভ জন্মাষ্টমী। এ উপলক্ষে সোমবার (৩০ আগস্ট) দিনব্যাপী নানা মাঙ্গলিক আয়োজন করে জেলা জন্মাষ্টমী উদযাপন পরিষদ, হিন্দু ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্ট ও রাধা দামোদর মন্দির।

এতে প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক মো. মামুনুর রশীদ। উদ্বোধক ছিলেন কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক এড. সিরাজুল মোস্তফা।

জেলা প্রশাসক মো. মামুনুর রশীদ বলেন, “শ্রীকৃষ্ণের একমাত্র লক্ষ্য ছিল মানুষে মানুষে ভ্রাতৃত্ব স্থাপন এবং সমাজে সাম্য প্রতিষ্ঠা। তিনি আজীবন শান্তি মানবপ্রেম ও ন্যায়ের পতাকা সমুন্নত রেখেছেন। শ্রীকৃষ্ণ তাঁর জীবনাচরণ এবং কর্মের মধ্য দিয়ে মানুষের আরাধনা করেছেন।”

কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক এড. সিরাজুল মোস্তফা বলেন, “বাংলাদেশ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির দেশ। এদেশে সকল ধর্ম ও বর্ণের মানুষ যুগ যুগ ধরে শান্তি পূর্ণভাবে বসবাস করে আসছে। আমাদের সংবিধানে সকল ধর্ম ও বর্ণের মানুষের সমানাধিকার নিশ্চিত করা হয়েছে। আমরা বিশ্বাস করি- ধর্ম যার যার, উৎসব সবার।’”

শুভ জন্মাষ্টমী উপলক্ষে লালদিঘির পাড়স্থ সরস্বতী বাড়ি প্রাঙ্গণে হিন্দু ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের উদ্যোগে গীতা পাঠ প্রতিযোগিতা, আলোচনা সভা, পুরস্কার বিতরণ ও বিশেষ প্রার্থনা অনুষ্ঠিত হয়। জেলা পুজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক ট্রাস্টি বাবুল শর্মার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক মো. মামুনুর রশীদ। অনুষ্ঠানে উদ্বোধক ছিলেন কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক এড. সিরাজুল মোস্তফা।

বিশেষ অতিথি ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) বিভীষণ কান্তি দাশ, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মিল্টন রায়, জেলা পুজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি এড. রনজিত দাশ ও সহ-সভাপতি উদয় শংকর পাল মিঠু। এতে ধর্মীয় আলোচক ছিলেন উখিয়া ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ অজিত কান্তি দাশ।

অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন হিন্দু ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের সহকারী প্রকল্প পরিচালক বিশ্বজিৎ ব্যানার্জি। সঞ্চালনা করেন সাংবাদিক বলরাম দাশ অনুপম। এছাড়া রাধা দামোদর মন্দিরেও জন্মাষ্টমী উপলক্ষে নানা কর্মসূচি পালন করা হয়।

এর আগে সকালে ঘোনারপাড়া কৃষ্ণনন্দধাম মন্দিরে আর্থিক সহায়তা প্রদান ও ধর্মীয় আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক মো. মামুনুর রশীদ। জেলা জন্মাষ্টমী উদযাপন পরিষদের সভাপতি স্বপন কান্তি পাল (নাজির) এর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক বিশ্বজিত পাল বিশুর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) বিভীষণ কান্তি দাশ, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মিল্টন রায়, জেলা পুজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি এড. রনজিত দাশ, সাধারণ সম্পাদক বাবুল শর্মা, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক দীপক শর্মা দিপু ও শহর পুজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি বেন্টু দাশ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •