অনলাইন ডেস্ক: বাংলাদেশে এক বিলিয়ন ডলার (৮ হাজার কোটি টাকা) বিনিয়োগ করবে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম-ফেসবুক। দেশের ডিজিটাল অবকাঠামো খাতে ফেসবুক বিনিয়োগের এ আগ্রহ প্রকাশ করেছে। ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার  বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, এটা ছিল আলোচনার একেবারে প্রথম ধাপ। পরে আরও বিস্তারিত বলা যাবে আসলে তারা কোন কোন খাতে বিনিয়োগ করতে চায়। এক বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, টাকার পরিমাণ এমনই হবে। তারা ডিজিটাল অবকাঠামোর কথা বলেছে। আমরা তাদের আগ্রহকে স্বাগত জানাই। মন্ত্রী যোগ করেন, বিভিন্ন দেশে ফেসবুক এ ধরনের বিনিয়োগ করে থাকে। তাদের আগ্রহের তালিকায় বাংলাদেশের নাম আছে। তার মানে ফেসবুক বাংলাদেশকে গুরুত্ব দিয়ে ভাবছে। তারা এখন এ দেশে ভ্যাট দেয়। বিনিয়োগ করতে চায়। এটা এ দেশের জন্য অন্যতম একটা দিক।

মোস্তাফা জব্বার জানান, ফেসবুক আগে বাংলাদেশকে গুরুত্ব দিত না। কথাও শুনতে চাইতো না। ফেসবুকের সঙ্গে সম্পর্কের শিথিলতা দূর হয়েছে। তারা বাংলাদেশকে গুরুত্ব দিচ্ছে। তথ্য চাইলে দিয়ে সহযোগিতা করছে। ফেসবুক বাংলাদেশে দিক থেকে মুখ ঘুরিয়ে নিচ্ছে না।

বাংলাদেশের লক্ষ্য যেহেতু ডিজিটাল বাংলাদেশ। ফলে বাংলাদেশ ফেসবুকের কাছে ডিজিটাল কানেক্টিভিটির ওপরে ফোকাস রাখতে বলবে। এই খাতেই বিনিয়োগ চাইতে পারে বাংলাদেশ। তবে বিষয়টি পুরোপুরি নির্ভর করছে বাংলাদেশ কী ধরনের প্রজেক্ট দিচ্ছে তার ওপর।

দেশের একজন প্রযুক্তি উদ্যোক্তা নিজের নাম পরিচয় প্রকাশ না করার শর্তে  বলেন, আমার কাছে মনে হয়েছে ফেসবুক দেশের ডিজিটাল অবকাঠামো খাতেই বিনিয়োগ করবে। কারণ হিসেবে তিনি উল্লেখ করেন, দেশে এখন ফেসবুক ব্যবহারকারী ৪ কোটি ৮০ লাখের বেশি। এখানে তাদের বিশাল ব্যবসা রয়েছে। ফলে তারা চাইবে ব্যবহারকারীর সংখ্যা আরও বাড়াতে। সে কারণে তারা দুর্গম এলাকায় ইন্টারনেট পৌঁছাতে, কম টাকায় স্যেশাল প্যাকের অফারের মতো উদ্যোগ নিতে, কম দামের ডিজিটাল ডিভাইস সহজলভ্য করা, ফ্রি ওয়াইফাই জোন স্থাপন, ফেসবুক কেন্দ্রিক বিভিন্ন উদ্যোগে সহায়তা দানের মতো কাজ করতে পারে।

  • বাংলা ট্রিবিউন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •