এবিপি আনন্দ  :

সেনা বিমানে দিল্লি হয়ে কলকাতায় ফিরলেন আফগানিস্তানে আটকে থাকা ২ বাঙালি।

দেশে ফিরলেও নিমতার বাসিন্দা তমাল ভট্টাচার্য এবং লেক ভিউয়ের বাসিন্দা স্মরজিৎ মুখোপাধ্যায়ের চোখেমুখে আতঙ্কের ছাপ স্পষ্ট।

আফগানিস্তানে একটি আন্তর্জাতিক স্কুলে শিক্ষকতা করতে গিয়ে সেদেশে আটকে পড়েন বলে জানিয়েছেন তমাল ভট্টাচার্য। তবে, কী কারণে আফগানিস্তানে ছিলেন, সেব্যাপারে মুখ খোলেননি লেক ভিউয়ের বাসিন্দা সরজিৎ মুখোপাধ্যায়।

এদিকে, ঘরের ছেলে ঘরে ফেরায় স্বস্তিতে দুই বাঙালির পরিবার। কলকাতায় ফিরে, তমাল জানালেন, তালিবান তাঁদের সঙ্গে ভাল ব্যবহার করেছে। ভাল খেতে দিয়েছে। এমনকী, ক্রিকেটও খেলেছে।

তমালের পরিবার জানিয়েছিল, শুক্রবার রাত থেকেই কাবুল বিমানবন্দরে ঢোকার চেষ্টা করছিলেন তিনি। পরিবারের দাবি, এরপরই শনিবার দুপুরে কাবুল থেকে হোয়াটসঅ্যাপে পাঠানো মেসেজে তমাল লেখেন, “Picked up by talibans.”

যদিও তাঁর পরিবার পরে জানায়, তাঁকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। তমালের মা জানিয়েছিলেন, কিছু প্রশ্ন করেছে। ভাল খাইয়েছে। তারপর ছেড়ে দিয়েছে।

এ যেন মৃত্যুপুরী থেকে ফিরে আসা। এদিন আফগানিস্তান থেকে উদ্ধার করা হল ১৯৪ জন ভারতীয়কে। এদের মধ্যে ৮৭ জন প্রথমে কাবুল থেকে তাজিকিস্তান হয়ে দেশে ফেরেন।

বিমানে তাঁদের মুখে শোনা যায়, ভারত মাতা কি জয় ধ্বনি। একই বিমানে দিল্লি পৌঁছন নেপালের দুই নাগরিকও। এর পাশাপাশি, কাবুল থেকে আরও ১৬৮ জনকে নিয়ে দেশে ফিরল বায়ুসেনার বিমান।

এদের মধ্যে ১০৭ জন ভারতীয়। এই বিমানেই ভারতে পৌঁছন আফগানিস্তানের শিখ সাংসদ নরিন্দর সিং খালসা ও আফগান পার্লামেন্টের উচ্চকক্ষের সদস্য আনারকলি হোনারিয়ার। এয়ার লিফটের মোদি সরকারকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন তাঁরা।

গতকালই আটকে থাকা ভারতীয়দের উদ্ধার-কৌশল বদল করে নয়াদিল্লি। ঠিক হয়, কাবুল থেকে ছোট ছোট দলে ভাগ করে উদ্ধার করবে ভারতীয় বায়ুসেনা।

এজন্য কাজে লাগানো হচ্ছে সি-১৩০জে হারকিউলিস বিমান। গতকাল, ৯০ জনকে উদ্ধার করে আনা হয় তাজিকিস্তানে। পরে আবার ওই বিমান ফেরত যাবে কাবুলে। বাকিদের উদ্ধার করে আনা হবে তাজিকিস্তানে। সেখান থেকে সি-১৭ গ্লোবমাস্টারে চড়ে দেশে ফেরেন ভারতীয়রা।

এর আগে ভারতের তরফে জানানো হয়, কাবুল বিমানবন্দরের টারম্যাকে বহু লোকের ভিড়। সেই কারণে সি-১৭ গ্লোবমাস্টারের মতো বড় বিমান অবতরণ ও টেক অফে সমস্যা হচ্ছে। সেই কারণে তিনদিন ধরে তাজিকিস্তানে আটকে রয়েছে ভারতীয় বায়ুসেনার সি-সেভেন্টিন বিমান।

এখনও কাবুলে আটকে বহু ভারতীয়। দ্রুত তাঁদের দেশে ফেরাতে আমেরিকার বিদেশ সচিব অ্যান্টনি ব্লিঙ্কেনের সঙ্গে আলোচনা চলছে ভারতের।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •