বিশেষ প্রতিবেদক
কক্সবাজার জেলা জজশীপের উদ্যোগে স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান-এর ৪৬ তম শাহাদতবার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস যথাযোগ্য মর্যাদায় গতকাল নানা কর্মসুচির মাধ্যমে পালন করা হয়েছে। এ উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ ইসমাইল তার বক্তব্যে একটি নিরপেক্ষ কমিশন গঠন করে বঙ্গবন্ধু ও তাঁর পরিবারের সদস্যদের নির্মম হত্যাকান্ডের সাথে নেপথ্যে কার কার সম্পৃক্ততা ছিল তা খতিয়ে দেখার উপর গুরুত্বারোপ করেছেন।

সেমাবার বিকালে কক্সবাজার জেলা জজশীপ ও জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেসীর আয়োজনে আলোচনা সভায় জেলা ও দায়রা জজ আরো বলেন, বর্তমান প্রজন্মকে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ সম্পর্কে শিক্ষা দেওয়া অতীব জরুরী। এজন্য শিক্ষা প্রতিষ্টানগুলোকে এগিয়ে আসারও আহ্বান জানান তিনি।

জেলা ও দায়রা জজের সভাপতিত্বে অনুষ্টিত আলোচনা সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-১ আদালতের বিচারক মুসলেহ উদ্দিন, চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আলমগীর মুহাম্মদ ফারুকী, অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আবদুল্লাহ আল মামুন, অতিরিক্ত চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট রাজীব কুমার বিশ^াস, যুগ্ন জেলা জজ-১ মাহমুদুল হাসান, যুগ্ন জেলা জজ-২ মোঃ সাইফুল ইসলাম, সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট দেলোয়ার হোসেন, সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট দেলোয়ার হোসেন, পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) অ্যাডভোকেট ফরিদুল আলম, বিশেষ পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাডভোকেট বদিউল আলম সিকদার প্রমুখ। সঞ্চালনায় ছিলেন সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট তামান্না ফারাহ।

দিনব্যাপি অনুষ্টানে খতমে কোরআন, দোয়া মাহফিল ও এতিমদের মধ্যে খাবার পরিবেশন করা হয়।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •