সফি উল করিম স্বপ্নীল:
টাকার অভাবে চিকিৎসা হচ্ছে না কক্সবাজার সদরের ইসলামপুরের ৭ নং ওয়ার্ডের পূর্ব বামনকাটা গ্রামের দিনমজুর আবছার কামালের স্ত্রী তানজিনা আক্তার (২৭) এর। মাস দেড়েক আগে দুরারোগ্য ক্যান্সার ও লিভার জন্ডিসসহ বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হয়েছেন তিনি।
তানজিনার দিনমজুর স্বামী যা উপার্জন করেন তা দিয়ে কোনমতে টেনেটুনে সংসার চলে। চিকিৎসা করার মতো হাতে খরচের টাকা নাই। অভাবের সংসারে চলছে টানাপোড়েন।
৩ সন্তান রিফা আক্তার (১০), রিসাত (৮), ছোট মেয়ে মরিয়ম (৪) এর দিকে চেয়ে হলেও তাকে বাঁচানোর আহ্বান সকলের।
বুধবার (২১জুলাই) সরেজমিন গিয়ে দেখা যায়, সারা দিন ঘরের কোণে তানজিনাকে শুয়ে থাকতে হয়। ঠিক মতো শুয়ে থাকতে পারেন না; বসতেও পারেন না, পারেন না হাটাহাটিও করতে। যন্ত্রণায় রাতে ঘুমাতেও পারেন না। শুধু এদিক ওদিক ছটফট করছেন একটু শান্তির আশায়। খাওয়া দাওয়া বন্ধ সপ্তাহখানেক হলো। দু’চারদিন হলো কথা বলাও বন্ধ।
মাস দু’এক আগে অসুস্থতা অনুভব করলে প্রথমে ডুলাহাজারা মালুমঘাট মা-মণি হাসপাতালে চিকিৎসা করানো হয়। কোন উন্নতি হয় নি। এরপর কক্সবাজারে একটি বেসরকারী হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখান থেকে ঢাকায় নিয়ে যেতে পরামর্শ দেন চিকিৎসক।
দিনমজুরের স্ত্রী এত টাকা পাবে কই? ঢাকা নেওয়া সম্ভব হলো না। ফিরিয়ে আনা হয় বাড়িতে। ইতিমধ্যে ধারদেনা করে হাতে রাখা প্রায় ৭০ হাজার টাকা চিকিৎসায় খরচ হয়ে যায়।
চিকিৎসকদের ভাষ্যমতে, তানজিনার চিকিৎসা খরচের জন্য অনুমান দেড় লক্ষ টাকা দরকার। যা দিনমজুর আবছার কামালের পক্ষে অসম্ভব।
এখন ঔষধ কেনার টাকা নেই। চিকিৎসার অভাবে ঘরে বসে মৃত্যুর প্রহর গুনছেন তানজিনা আক্তার।
অসহায়, দিনমজুর পরিবারের স্ত্রীর চিকিৎসা সহায়তায় সামর্থ্যবানরা এগিয়ে আসুন।

#প্রয়োজনেঃ- ০১৮৩২৭২১৫৭০ (পার্সোনাল বিকাশ, স্বামী আবছার কামাল)

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •