মোঃ নাজিম উদ্দিন, দক্ষিণ চট্টগ্রাম প্রতিনিধি:

দক্ষিণ চট্টগ্রামের সাতকানিয়ায় গ্যাস সিলিন্ডারের আগুনে পোড়ার ঘটনায় এবার খালেদা বেগম (৪২)
নামের আরও একজনের মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় নারীসহ ৩ জন মারা গেলেন। সে চরপাড়ার সৈয়দ আহমদের মেয়ে ও লোহাগাড়ার কিল্লার আন্দর এলাকার মোঃ শাহ আলমের স্ত্রী।

(১৪ জুলাই) বুধবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে ৬ দিন চিকিৎসাধীন অবস্থায় থাকার পর তাঁর মৃত্যু হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন নিহতের ছোট ভাই গিয়াস উদ্দিন। তিনি জানান, রাতে তার বড় বোনের মৃত্যু হয়েছে।ভাগিনা শাহনেওয়াজের অবস্থাও আশঙ্কাজনক।

এর আগে গত মঙ্গলবার ভোরে এ আগুনে পোড়ার ঘটনায় উত্তর চরপাড়া এলাকার বাসিন্দা মৃত আলী আহমদের ছেলে দেলোয়ার হোসেন (৫০) ও গত শনিবার রাত দশটার দিকে একই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান হেলাল উদ্দিন (৩০)।

সাতকানিয়া পৌরসভার ৬ নম্বর ওয়ার্ডের উত্তর চরপাড়া এলাকায় সৈয়দ আহমদের বাড়িতে গত ৮ জুলাই বৃহস্পতিবার রাত দশটার দিকে গ্যাসের সিলিন্ডার আগুনে  পাঁচজন দগ্ধ হন।

দগ্ধ ব্যক্তিরা হলেন—
দেলোয়ার হোসেন (৫০), মোঃ হেলাল উদ্দিন (৩০), শাহ আলম (৫০) তাঁর স্ত্রী খালেদা বেগম (৪২) ও তাদের ছেলে শাহনেওয়াজ (৪০)।

সাতকানিয়া পৌর কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র সাইফুল আলম সোহেল জানান, গ্যাস সিলিন্ডারের আগুন লাগার পর পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস উদ্ধারকাজ চালিয়ে পাঁচ জনকে গুরুতর আহত অবস্থায় উদ্ধার করে। এরপর সাতকানিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হয় তাদের। পরে তাদের মধ্যে চার জনের অবস্থার অবনতি হলে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে নেওয়া হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় হেলাল উদ্দিন, দেলোয়ার হোসেনের পর  বুধবার রাতে খালেদার মৃত্যু হলো।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •