বার্তা পরিবেশক:
কক্সবাজার শহরের কলাতলীর হোটেল জামান সুইটস দখলের চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। এই জন্য হোটেলের এক পরিচালককে মারধর ও গুলি বর্ষণ করা অভিযোগ করেছেন জানিয়েছেন হোটেল কর্তৃপক্ষ।

শনিবার বেলা ২ টার দিকে হোটেলের মালিক চট্টগ্রামের ওয়াহিদুজ্জামান বাবুর নেতৃত্বে তার স্ত্রী, স্ত্রীর ভাই ও পুত্র মিলে এই ঘটনা ঘটিয়েছে বলে জানিয়েছেন হোটেল কর্মকর্তা-কর্মচারীরা।
হোটেল ম্যানেজার জানান, হোটেলের পরিচালক সুফিয়ান আনছারীকে বাবুসহ সবাই মিলে মারধর করে। পরে গুলি বর্ষণ করেন তিনি।

হোটেলটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাহজাহান আনছারী বলেছেন, ২০১৬ সালে পাঁচ বছরের জন্য হোটেলটি ভাড়া নেন শাহজাহান আনছারী। এর মধ্যে ১৭টির ফ্ল্যাটের ক্রয় মালিকও তিনি। অন্য ফ্ল্যাটগুলোও মালিক বিভিন্ন জনকে বিক্রি করে দিয়েছেন মালিক ওয়াহিদুজ্জামান।

শাহজাহান আনছারী আরো জানিয়েছেন, চুক্তির মেয়াদ শেষ না হতেই হোটেল দখলের চেষ্টা করে আসছেন। এই নিয়ে হাইকোর্ট নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। এডিএম কোর্টের দুটি ১৪৪ ধারা নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। কিন্তু তা না মেনে আবারো হোটেলটি দখলের চেষ্টা করেছেন বাবু।
তিনি বলেন, হোটেল দখল করতে এসে বাধা দেয়ায় আমার ছোট ভাইকে হত্যার উদ্দেশ্যে প্রকাশ্যে গুলি চালায় চিহ্নিত প্রতারক বাবু। তিনি আরও বলেন, বাবু আমার প্রদত্ত হোটেল ভাড়া চুক্তির সেলামীর আড়াই কোটি টাকা ফেরত দিতে ও ক্রয়কৃত ফ্ল্যাটের রেজিষ্ট্রি দিতে গড়িমসি করছে।

কক্সবাজার সদর মডেল থানা ওসি (তদন্ত) বিপুল চন্দ্র জানিয়েছেন, গুলি বর্ষণ ও দুপক্ষের মধ্যে ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যায় সদর মডেল থানার একদল পুলিশ। তারা গিয়ে ওয়াহিদুজ্জামান বাবুর লাইসেন্সধারী একটি শর্টগান থানায় নিয়ে এসেছেন। তবে শাহজাহান আনছারী জানান-বাবুর আরও একটি অবৈধ অস্ত্র রয়েছে। যা হোটেলের সিসিটিভি’র ফুটেজই বড় প্রমাণ।

তবে এই বিষয়ে কথা বলতে অস্বীকৃতি জানিয়েছেন ওয়াহিদুজ্জামান বাবু।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •