আলমগীর মানিক, রাঙামাটি
রাঙামাটির চন্দ্রঘোনায় উপজাতীয় দুই গ্রুপের মধ্যে দফায় দফায় গুলিবিনিময়ের ঘটনা ঘটেছে। বৃহস্পতিবার সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত সময়ে নারানগিরি বড়পাড়া নামক এলাকায় এই গুলি বিনিময়ের ঘটনায় সন্তু লারমার নেতৃত্বাধীন জেএসএস’র এককর্মী মারা গেছে। নিহতের মরদেহ উদ্ধার করতে ঘটনাস্থলে পুলিশের একটি দল গেছে তারা ফিরে আসলে বিস্তারিত জানানো হবে বলে নিশ্চিত করেছেন রাঙামাটির অতিরিক্তি পুলিশ সুপার মোঃ মারুফ আহাম্মেদ।
এদিকে স্থানীয় সূত্রে জানাগেছে, রাইখালী থেকে জেএসএস এর একটি সশস্ত্র দল রাজস্থলী যাওয়ার পথে নারানগিরি বড়পাড়া নামক স্থানে পৌছুলে সেখানে আগে থেকে অবস্থান করা মায়ানমারের বিচ্ছিন্নতাবাদী এমএনপি’র সশস্ত্র সন্ত্রাসীদের সাথে মুখোমুখি হওয়ার সাথে সাথেই উভয় পক্ষ বন্দুকযুদ্ধে লিপ্ত হয়। কয়েক দফায় সদস্য সংখ্যা বৃদ্ধি করে বিকেলে জেএসএস-এমএনপি’র সন্ত্রাসীরা কচুরিপাড়া এলাকায় আবারো কয়েশো রাউন্ড গুলি বিনিময় করে।
এতে জেএসএস এর অন্তত দুইজন সন্ত্রাসী নিহত ও একজন আহত হওয়ার খবর অসমর্থিত সূত্র থেকে জানাগেলেও প্রশাসন সেটি নিশ্চিত করতে পারেনি। রাঙামাটির অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) মারুফ আহাম্মেদ গুলি বিনিময়ের খবর নিশ্চিত করে প্রতিবেদককে জানিয়েছেন, উক্ত ঘটনায় একজন নিহত হয়েছে এবং পুলিশ তার মরদেহ উদ্ধার করতে সেখানে গেছে। তারা ফিরে আসলে বিস্তারিত জানানো হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •