আলাউদ্দিন, লোহাগাড়া প্রতিনিধি :

লোহাগাড়া উপজেলার সদর ইউনিয়নে ৩ বাড়িতে পরিবারের সবাইকে অচেতন করে দুর্ধর্ষ চুরির ঘটনা ঘটেছে।

গতরাত সোমবার ( ৫ জুলাই) দিবাগত রাতে কোনো এক সময় উপজেলার সদর ইউনিয়নের উকিলের পাড়ার কবির আহমদ, আবুল হাশেম ও প্রবাসী রহমতুল্লাহর বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

ধরাণা করা হচ্ছে, চোরের দল বাড়িতে ঢুকে খাবারের সাথে চেতনানাশক ঔষুধ মিশিয়ে অথবা ঘুমের মধ্যে ‌স্প্রে ক‌রে প‌রিবা‌রের সবাইকে অচেতন করে চুরির ঘটনা ঘটিছে।

এঘটনায় নারী বৃদ্ধ ও কিশোর-কিশোরীসহ বেশ কয়েকজন অসুস্থ হয়ে পড়ে। এদের সাউন্ড হেলথ হাসপাতালে ৬ জন ভর্তি রয়েছেন। বাকিদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয় হয়েছে ।

স্থানীয় ইউপি সদস্য মাওলানা বেলাল উদ্দিন বলেন, মঙ্গলবার সকাল ৯ টার দিকে প্রতিবেশীরা তাদের বাড়িতে গিয়ে ঘরে সবাইকে অচেতন থাকতে দেখে। পরে তাদেরকে উদ্ধার করে উপজেলার বিভিন্ন হাসপাতালে নিয়ে যায় ।

তিনি আরো বলেন, গতরাতে কবির আহমদ, আবুল হাশেম ও প্রবাসী রহমতুল্লাহর বাড়িতে বাড়ির ভেন্টিলেটর দিয়ে ঢুকে চোরের দল।

চোরের দলের ধরাণা করা হচ্ছে খবারে চেতনানাশক ঔষুধ মিশিয়ে অথবা ঘুমের মধ্যে ‌স্প্রে ক‌রে পরিবারের সকলে অচেতন করে। পরে চোরের দল স্বর্ণালংকার ও নগদ লক্ষাধিক টাকা নিয়ে যায় ।

সাতকানিয়া সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জাকারিয়া রহমান জিকু বলেন, খবর পেয়ে সকালে লোহাগাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ জাকের হোসাইন মাহমুদ নিয়ে ঘটনাস্থলে পরিদর্শন করি।

ধরাণা করা হচ্ছে, খবারে চেতনানাশক ঔষুধ মিশিয়ে সংঘবদ্ধ চোরচক্র এ ঘটনা ঘটিয়েছে। তাদেরকে চিহ্নিত করে গ্রেফতারে পুলিশ তৎপর রয়েছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •