ইমাম খাইর, সিবিএন:
বিদেশগামী কর্মীদের করোনার টিকার জন্য সুরক্ষা প্ল্যাটফর্মে রেজিস্ট্রেশনের সুবিধার্থে নিবন্ধন চলছে।

সরকারের নির্দেশিকা মতে শুক্রবার (২ জুলাই) সকাল ৯ টা থেকে কক্সবাজার জেলা জনশক্তি ও কর্মসংস্থান অফিসে নিবন্ধন কার্যক্রম শুরু হয়েছে।

প্রতিদিন বিকাল চারটা পর্যন্ত চলছে এই কার্যক্রম। নিবন্ধন প্রত্যাশীরা ভীড় করতে দেখা গেছে।

শনিবার (৩ জুলাই) দুপুরে বেলা ১টার দিকে সরেজমিন দেখা গেছে, কক্সবাজার আদালত ভবনের দক্ষিণ পাশে (পুরাতন পাসপোর্ট অফিস সংলগ্ন) জনশক্তি ও কর্মসংস্থান অফিসের সামনে দীর্ঘ লাইন। তবে, তাদের মাঝে স্বাস্থ্যবিধি মানার কোন প্রবণতা দেখা যায় নি। সবাই ঘেঁষাঘেঁষি করে দাঁড়িয়েছে।

অনেকে অভিযোগ করেছে, সকাল ৮ টা থেকে লাইনে দাঁড়িয়ে বেলা ১টা পর্যন্ত সেবা পায় নি। খুব ধীর গতিতে চলছে নিবন্ধন কাজ।

অফিসের ভেতরে ঢুকে দেখা গেছে, দুইজন মাত্র লোক ডাটা এন্ট্রির কাজ করছেন।

সার্ভে অফিসার মিঠুন মুৎসুদ্দী কিছুক্ষণ অফিসে বসেন। আবার বাইরে গিয়ে লোকের চাপ সামলাচ্ছেন। এরপরও তারা সেবা দিতে সর্বোচ্চ চেষ্টা চালিয়ে যেতে দেখা গেছে।

তবে, নিবন্ধন কাজে লোকবল বাড়ানোর দাবি সেবাপ্রার্থীদের।

জেলা জনশক্তি ও কর্মসংস্থান অফিসের সার্ভে অফিসার মিঠুন মুৎসুদ্দী জানান, শুক্রবার প্রথম দিনেই ১১২ জন বিদেশগামী ব্যক্তি নিবন্ধন করেছে।

প্রাথমিকভাবে সৌদি আরব ও কুয়েতগামীদের  নিবন্ধন করা হচ্ছে। কারণ, এই দুই দেশের যাত্রী বেশি। তাদের নিবন্ধনের শেষে ক্রমান্বয়ে সবাইকে নিবন্ধনের আওতায় আনা হবে।

দুই-তিনদিনের মধ্যেই বাকি দেশের যাত্রীরা নিবন্ধন করতে পারবে বলে আশা করছেন তিনি।

উল্লেখ্য, সৌদিগামীদের ১ ডোজ, কুয়েতগামীদের ২ডোজ দিয়েই বিদেশ যেতে হবে।

এদিকে ১ জুলাই প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় থেকে বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, গৃহীত সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নকল্পে বয়স প্রমার্জন ও অগ্রাধিকার পাওয়ার লক্ষ্যে যেসকল কর্মীর বিএমইটি’র ডাটাবেজে নিবন্ধন ও স্মার্ট কার্ড নেই, অথবা চলতি বছরের ১ জানুয়ারির আগের বিএমইটি’র স্মার্ট কার্ড আছে, সেসব কর্মীর টিকার জন্য সুরক্ষা অ্যাপে নিবন্ধনের সুবিধার্থে বৈধ পাসপোর্ট দিয়ে ২ জুলাই থেকে বিএমইটি’র ডাটাবেজে নিবন্ধন করতে হবে। তবে এই বছরের জানুয়ারি থেকে নিবন্ধিত কর্মীদের নতুন করে নিবন্ধনের প্রয়োজন হবে না।’

উল্লেখ্য, দেশের ৪২টি জেলা কর্মসংস্থান ও জনশক্তি অফিস, ৯টি টিটিসি (ব্রাহ্মণবাড়িয়া, লক্ষ্মীপুর, মাদারীপুর, মেহেরপুর, শরীয়তপুর, সুনামগঞ্জ, নীলফামারী, কুড়িগ্রাম, লালমনিরহাট) এবং বিআইএমটি, নারায়ণগঞ্জে (তালিকা: www.bmet.gov.bd-তে পাওয়া যাবে) স্বাস্থ্যবিধি মেনে সশরীরে হাজির হয়ে নির্ধারিত ও নিজ জেলায় সকাল ৯টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত, অথবা অনলাইনে ‘আমি প্রবাসী’ (Ami Probashi) অ্যাপে নিবন্ধন করা যাবে। বিএমইটির ডাটাবেজে নিবন্ধিত কর্মীরা কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন প্রাপ্তির লক্ষ্যে সুরক্ষা অ্যাপ www.surokkha.gov.bd এর মাধ্যমে জরুরিভাবে টিকা গ্রহণের জন্য রেজিস্ট্রেশন করতে পারবেন। রেজিস্ট্রেশন সফল হলে মোবাইলে মেসেজের মাধ্যমে টিকা সেন্টার ও টিকার তারিখ জানা যাবে।

মন্ত্রণালয় আরও জানায়, সুরক্ষা প্ল্যাটফর্মে নিবন্ধিত হয়ে টিকাকেন্দ্র ও তারিখ সংক্রান্ত মেসেজ না পাওয়া পর্যন্ত বিদেশগামী কর্মীদের কোনও হাসপাতাল, প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়, বিএমইটি বা জেলা কর্মসংস্থান ও জনশক্তি অফিসে স্বাস্থ্যবিধি ভঙ্গ করে জমায়েত হয়ে টিকা গ্রহণের সুযোগ নেই। বিষয়টি অনুধাবনের জন্য বিএমইটি থেকে বিদেশগামী কর্মীদের অনুরোধ করা হয়েছে।

 

 

 

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •