সিবিএন ডেস্ক:
টিকা সংকটে রয়েছে বাংলাদেশ। ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউট প্রতিশ্রুত টিকা না দেওয়ায় বিপদে পড়ে বাংলাদেশ। তবে, পরে বিভিন্ন দেশ থেকে টিকা সংগ্রহের যে চেষ্টা সেটির সুফল আসতে শুরু করেছে। শুক্রবার (২ জুলাই) রাতে কোভ্যাক্সের আওতায় যুক্তরাষ্ট্রের ১৩ লাখ মডার্নার এবং চীনের ২০ লাখ টিকা ঢাকায় আসছে। পরদিন শনিবার সকালে কোভ্যাক্সের আরও ১২ লাখ টিকা ঢাকায় এসে পৌঁছাবে। সব মিলিয়ে শনিবার সকালে সরকারের হাতে ব্যবহারযোগ্য ৪৫ লাখ টিকা থাকবে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন বাংলা ট্রিবিউনকে শুক্রবার সকালে বলেন, ‘আমরা ঠিক পথে আছি। আশা করছি, টিকার সংকট কাটিয়ে উঠতে পারবো।’

টিকা সংগ্রহের বিষয়ে তিনি বলেন, ‘আমরা চেষ্টা করেছি এবং এখন আমরা কোভ্যাক্সের আওতায় টিকা পাচ্ছি। একইসঙ্গে চীনের কাছ থেকেও টিকা পাওয়া গেছে।’

কোভ্যাক্সের আওতায় শনিবারের মধ্যে ২৫ লাখ টিকা চলে আসবে এবং আরও দেশের কাছ থেকে টিকা চাওয়া হয়েছে বলে তিনি জানান।তি

নি বলেন, ‘চীনের কাছ থেকে আমরা আজকে ২০ লাখ টিকা পাচ্ছি এবং সামনে চুক্তি অনুযায়ী আরও টিকা সরবরাহ করা হবে।’

শুক্রবার রাত ১১টার দিকে যুক্তরাষ্ট্র থেকে কোভ্যাক্সের প্রথম চালান আসবে এবং দ্বিতীয় চালান আসবে শনিবার সকাল ৮টার দিকে। অপরদিকে চীনের ২০ লাখ টিকার চালান আজ রাত ১২টার দিকে ঢাকায় এসে পৌঁছাবে।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী, স্বাস্থ্যমন্ত্রী, পররাষ্ট্র সচিব, স্বাস্থ্য সচিব ও উভয় দেশের রাষ্ট্রদূতসহ অন্যান্য কর্মকর্তারা বিমানবন্দরে রাতে উপস্থিত থাকবেন বলে আশা করা হচ্ছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •