শাহেদ মিজান, সিবিএন:
বাংলাদেশের রাজনৈতিক ইতিহাসে বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ একটি গৌরবময় ইতিহাস তৈরি করেছে। আর আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে বাংলাদেশ বিশ^ দরবারে স্থান পেয়েছে।

বুধবার (২৩ জুন) আওয়ামী লীগের ৭২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর আলোচনা সভায় কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ একথা বলেছেন।

তারা বলেন, বঙ্গবন্ধুর বলিষ্ঠ নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ এশিয়ার অন্যতম শীর্ষ রাজনৈতিক দল হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। ৭২ বছরের ইতিহাসে সৃষ্টি করেছে বহু গৌরবময় দৃষ্টান্ত। এদেশের মানুষের অধিকার আদায় এবং সুষম ও উন্নত বাংলাদেশ গড়তে আওয়ামী লীগ অভূতপূর্ব অবদান রেখেছে।

বক্তারা আরো বলেন, স্বাধীনতা ও দেশ বিরোধীরা বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে বাংলাদেশকে পুনরায় পাকিস্তান বানাতে চেয়েছিলো। কিন্তু বঙ্গবন্ধুর যোগ্য উত্তরসূরী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার যোগ্য নেতৃত্বের কারণে তা সম্ভব হয়নি। শেখ হাসিনা তাঁর বুদ্ধিদীপ্ত নেতৃত্বের মাধ্যমে সকল ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করে বাংলাদেশকে উন্নত দেশের কাতারের দিকে এগিয়ে নিয়ে গেছে। সেই সাথে তিনি নিজে অর্জন করে নিয়েছেন বিশ^ নেতৃত্বের যোগ্যতা।

আওয়ামী লীগের হাতে যতদিন দেশের ক্ষমতা থাকবে ততদিন বাংলাদেশ উন্নয়নের ধারা থেকে বিচ্যুত হবে না। ক্রমান্বয়ে আরো উন্নতের দিকে এগিয়ে যাবে। উন্নয়নের এই ধারা অব্যাহত রাখতে আওয়ামী লীগকে আরো সুসংগঠিত করতে দলীয় নেতাকর্মীদের প্রতি আহ্বান জানান নেতারা।

কক্সবাজার পাবলিক লাইব্রেরীর শহীদ দৌলত ময়দানে জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এড. ফরিদুল ইসলাম সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উক্ত আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র মুজিবুর রহমান, সহ-সভাপতি এড. বদিউল আলম, এথিন রাখাইন ও রেজাউল করিম, সাবেক সাধারণ সম্পাদক সালাহ উদ্দীন আহমদ সিআইপি, জেলা মহিলা আওয়ামী লীগে সভাপতি ও সাংসদ কানিজ ফাতেমা মোস্তাক, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক ও সাংসদ আশেক উল্লাহ রফিক, যুগ্ম সম্পাদক এড. মাহবুুবল আলম মুকুল, এড. রনজিৎ দাশ, সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক এড. তাপস রক্ষিত, পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক ইউনুছ বাঙ্গালী, শ্রম বিষয়ক সম্পাদক মোস্তাক আহামদ শামীম, জিয়া উদ্দীন, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি মোহাম্মদ নজিবুল ইসলাম, জেলা যুবলীগের সভাপতি সোহেল আহামদ বাহাদুর, সাধারণ সম্পাদক শহীদুল হক সোহেল, জেলা শ্রমিক লীগের সভাপতি জহিরুল ইসলাম সিকদার, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি এস.এম সাদ্দাম হোসাইন, সাধারণ সম্পাদক মারুফ আদনান।

অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন জেলা আওয়ামী লীগের উপ-প্রচার সম্পাদক এমএ মঞ্জুর।

প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষ্যে সকালে বঙ্গবন্ধুর স্মৃতিস্তম্ভে পুষ্পমাল্য অর্পণ এবং বিকালে এক র‌্যালী শহরে প্রধান সড়ক প্রদিক্ষণ করে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •