পেকুয়া প্রতিনিধি :

কক্সবাজারের পেকুয়ায় সিএনজি অটোরিকশায় মাইক বেঁধে নির্বাচনী প্রচারণা চালানো সময় হামলা চালিয়ে দুই যুবককে আহত করেছে দুর্বৃত্তরা।

মঙ্গলবার (৮জুন) রাত সাড়ে ৯ টার দিকে উপজেলার রাজাখালী ইউনিয়নের বদি উদ্দিন পাড়ার দক্ষিণ পাশে এ ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলেন, রাজাখালী ইউনিয়নের পালাকাটা গ্রামের বাসিন্দা শামসুল আলমের ছেলে মো. আনছার (১৬) ও মৌলভী পাড়া আনছারের ছেলে মো. সোহেল (২২)। তারা রাজাখালী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ও পরিবহন শ্রমিক নেতা নাছির উদ্দিনের অনুসারী। তাদের পেকুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী মো. মুহিবুল্লাহ বলেন, রাজাখালী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থী নাছির উদ্দিনের পক্ষে মঙ্গলবার সন্ধ্যা থেকে আমরা ইউনিয়নের বিভিন্ন স্থানে মাইকিং করছিলাম। সিএনজি অটোরিকশা যোগে আমরা পাঁচজন মঙ্গলবার রাতে বদি উদ্দিন পাড়া এলাকায় মাইকিং করার সময় অতর্কিতভাবে আমাদের ওপর হামলা চালায় দুর্বৃত্তরা। লোহার রড় ও লাঠিসহ দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে তারা আমাদের বেধড়ক মারধর করে। এসময় তারা আমাদের কাছ থেকে দু’টি মোবাইল ও নগদ টাকা তিন হাজার ছিনিয়ে নেয়। পরে স্থানীয়রা এগিয়ে এসে আমাদের উদ্ধার করে।

রাজাখালী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক নাছির উদ্দিন বলেন, আমার পক্ষে প্রচারণা চালানোয় ক্ষিপ্ত হয়ে বর্তমান চেয়ারম্যান ছৈয়দ নূরের লোকজন পরিকল্পিতভাবে এ হামলা চালিয়েছে। বদি উদ্দিন পাড়ার বাসিন্দা আবুল হাশেম, খোকনসহ ৮-১০জন ব্যক্তি এতে অংশ নেয় বলে জানতে পেরেছি। আমি এ ঘটনায় জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী করছি।

রাজাখালী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ছৈয়দ নূর বলেন, এ ঘটনায় আমার সম্পৃক্ততার অভিযোগ ভিত্তিহীন।

এব্যাপারে পেকুয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাইফুর রহমান বলেন, ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। লিখিত অভিযোগ পেলে এ ঘটনায় আইনি পদক্ষেপ নেয়া হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •