এম.মনছুর আলম,চকরিয়া :
সারা দেশের ন্যায় চকরিয়া উপজেলা প্রাণিসম্পদ দপ্তর ও ভেটেরিনারি হাসপাতালের আয়োজনে পুষ্টি মেধা, দারিদ্র্য বিমোচন, প্রাণিসম্পদ প্রদর্শনী এ শ্লোগানকে সামনে রেখে দিনব্যাপী ‘প্রাণিসম্পদ প্রদর্শনী ও মেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
শনিবার (৫জুন) দুপুরে উপজেলা প্রাণিসম্পদ দপ্তর ও ভেটেরিনারি হাসপাতালের আয়োজনে প্রদর্শনী
উপলক্ষে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।
শুরুতে প্রদর্শনী মেলার শুভ উদ্বোধন করেন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সৈয়দ শামসুল তাবরীজ।
উপজেলা ভেটেরিনারি মাঠ সহকারী জাহেদুল ইসলাম রবিন সঞ্চালনায় প্রদর্শনী মেলার আলোচনা সভা অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডা: সুপন নন্দী।
উক্ত অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন উপজেলা পরিষদের নারী ভাইস চেয়ারম্যান জেসমিন হক জেসি চৌধুরী, চকরিয়া থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মো.আশরাফ হোসেন, চকরিয়া সরকারি কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ একেএম গিয়াস উদ্দিন, উপজেলা ভেটেরিনারি সার্জন ডা: মুনতাকিম বিল্লাহসহ বিভিন্ন ব্যক্তিবর্গ ও খামরীবৃন্দ।
এসময় চকরিয়ায় কর্মরত সাংবাদিক, জনপ্রতিনিধি, সরকারি-বেসরকারী দপ্তরের কর্মকর্তা ও উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের উদ্যোক্তা এবং পশু-পাখি পালনে খামারীরা উপস্থিত ছিলেন।
অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সৈয়দ শামসুল তাবরীজ বলেন, বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর থেকে বেকারত্ব দূরীকরণে নানা ধরণের গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখে যাচ্ছে। দেশের কর্মহীন বেকার যুবক-যুবতীদের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে গড়ে তোলা হচ্ছে। তিনি বেকার যুবকদের চাকরির পেছনে না ঘুরে গবাদী পশু-পাখি পালনের মাধ্যমে স্বাবলম্বী ও
সফল উদ্যোক্তা হওয়ার আহ্বান জানান।
তিনি আরও বলেন, মানসম্মত ও উপযোগী খামার স্থাপন করলে,গবাদী পশু-পাখি ক্রয় করার জন্য ও ঋন সহায়তার ব্যবস্থায় দপ্তর তোমাদের পাশে গিয়ে দাঁড়াবে। দেশে গবাদী পশু-পাখি পালনে ব্যাপক উন্নয়ন ও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখে চলেছে প্রাণিসম্পদ বিভাগ ও সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়। ভালো মানের গবাদী পশু-পাখি পালন করে একদিকে যেমন লাভবান হওয়া সম্ভব, তেমনি অপর দিকে প্রতিষ্ঠিত ও আত্মকর্মসংস্থানের মাধ্যমে সাফল্যেও বটে।
আলোচনা সভা শেষে উপজেলায় সফল ও শ্রেষ্ট খামারীদের মাঝে ক্রেস্ট ও সনদপত্র প্রদান করেন অনুষ্ঠানের অতিথিবৃন্দ।
উল্লেখ্য, প্রাণিসম্পদ দপ্তরের দিনব্যাপী প্রদর্শনীতে উপজেলার বিভিন্ন স্থান থেকে খামারিরা উন্নতজাতের গবাদি পশু-পাখি নিয়ে উক্ত প্রদর্শনীতে অংশগ্রহন করেন। এতে বিশটি স্টল বসানো হয়েছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •