ইমাম খাইর, সিবিএন:
বর্তমান সময়ে বিভিন্ন এলাকার জন্য নতুন আতঙ্কের নাম ‘কিশোর গ্যাং’, যা উঠিত বয়সিদের সমন্বয়ে গঠিত হয়। এরা নানা ছদ্দবেশে ঘুরে বেড়ায়। দাবড়িয়ে হাকায় বিভিন্ন স্টাইলের মোটর সাইকেল। ছু মেরে নিয়ে যায় এটি, ওটি। ভাড়া যায় যে কোন অপরাধে। টাকার বিনিময়ে জান উড়িয়ে দিতেও পরোয়া করে না ‘কিশোর গ্যাং’ এর সদস্যরা।

এসব উৎপাতকারীদের ধরতে বিভিন্ন সময় অভিযানে নামে পুলিশ। কিছু ধরা পড়লেও অধরা রয়ে যায় সিংহভাগই।

গত সোমবার (২৪মে) এর কক্সবাজার সদর মডেল থানা পুলিশের কয়েকটি টিক বিশেষ অভিযান চালায়। এ সময় তাদের হাতে ধরা পড়ে কথিত সেই ‘কিশোর গ্যাং’ এর ৮ জন সদস্য।

মঙ্গলবার (২৫মে) রাত ১১টার দিকে ওসি শেখ মুনীর উল গীয়াস এ খবরটি জানিয়েছেন।

তিনি জানান, নতুন আতঙ্ক ‘কিশোর গ্যাং; এর উঠতি সক্রিয় সদস্য ও তাদের নৈপত্তে থাকা গ্যাং লিডারদেরকে আইনের আওতায় আনার লক্ষ্যে থানা এলাকায় চিরনি অভিযান পরিচালনা করে।

এ সময় আটককৃতরা হলো- বেগমগঞ্জ জেলার বজরা মৃধা বাড়ীর মোঃ আমির হোসেনের ছেলে মোঃ বেলাল, (বর্তমানে পৌরসভার ৪নং ওয়ার্ড পেশকার পাড়া, জমিদার উকিল এর বাপের ভাড়াটিয়া), সদরের খুরুশকুল  মনুপাড়ার মোঃ জালালের ছেলে মোঃ রফিক, শহরের পশ্চিম বাহারছড়ার মৃত শওকত আলীর ছেলে মোঃ আলমগীর, উত্তর নুনিয়ারছড়ার মোঃ হোছন আহাম্মদের ছেলে মোঃ সাদ্দাম হোসেন, মোহাজের পাড়ার মৃত আমির হোসেনের ছেলে মোঃ কাদের, ঘোনারপাড়ার মৃত জালাল আহাম্মদের ছেলে মোঃ সৈয়দ আলম, পূর্ব লাইট হাউজ পাড়ার মৃত মোঃ নুরুল ইসলামের ছেলে সাইফুল ইসলাম, সদরের পিএমখালী ছয় ভাইয়ের পাড়ার মোঃ ইসহাক মিয়া প্রকাশ ইউসুফের ছেলে মোঃ মুজিবুর রহমান প্রকাশ মুজিব (বর্তমানে- খুরুশকুল কুলিয়াপাড়া, ৯নং ওয়ার্ড, আবু বক্কর চেয়ারম্যানের বাড়ি)।

কিশোর গ্যাং নির্মুল করার লক্ষ্যে অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে জানান ওসি শেখ মুনীর উল গীয়াস।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •