মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী :

কক্সবাজার-৩ (সদর-রামু) আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব সাইমুম সরওয়ার কমল করোনামুক্ত হয়েছেন। সোমবার ১৭ মে তাঁর ফলোআপ টেস্ট রিপোর্ট ‘নেগেটিভ’ আসে।

কক্সবাজার জেলা পরিষদের সদস্য নুরুল হক ঢাকা থেকে সিবিএন-কে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। নুরুল হক নিজেই বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালের ভিআইপি কেবিনে চিকিৎসারত এমপি আলহাজ্ব সাইমুম সরওয়ার কমল’কে দেখতে সোমবার বেলা সাড়ে ১২ টার দিকে সেখানে গিয়েছিলেন।

বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের বরাত দিয়ে নুরুল হক আরো জানান, এমপি সাইমুম সরওয়ার কমলের ডায়বেটিস একটু বাড়া থাকায় ডায়াবেটিসটা নিয়ন্ত্রণে আনার জন্য চিকিৎসা চালিয়ে যাচ্ছেন। এমপি সাইমুম সরওয়ার কমলের দেহের আরো কিছু পরীক্ষা দেওয়া হয়েছে, যেগুলোর রিপোর্ট সোমবার রাতে ও মঙ্গলবার পাওয়া যাবে।এরপর বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের পরামর্শক্রমে তিনি হাসপাতাল ত্যাগ করতে পারেন বলে জানান-নুরুল হক। তবে এমপি সাইমুম সরওয়ার কমল হাসপাতাল ত্যাগের পরও বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের পরামর্শ অনুযায়ী তাঁকে আরো কিছুদিন কোয়ারান্টাইনে থাকতে হবে।

চলমান ভয়াবহ করোনা মহামারীতে যে মানুষটি নিজে ও পরিবারের সদস্যদের প্রচন্ড ঝুঁকিতে রেখে গত প্রায় ১৪ মাস ধরে কক্সবাজার-রামুবাসীর পাশে থেকে তাদের চিকিৎসার খোঁজ খবর নিয়েছেন, সাহস যুগিয়েছেন, জেলার সার্বিক চিকিৎসা ব্যবস্থা আরো উন্নত ও ব্যাপৃত করতে নিরন্তর চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছিলেন, করোনায় মৃতদের দাফন কাফনের সাথী হয়েছেন-সেই কক্সবাজার-৩ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব সাইমুম সরওয়ার কমল নিজেই গত ৫ মে করোনা আক্রান্ত হন। গত ৪ মে তিনি ঢাকায় নমুনা টেস্টে দিয়েছিলেন। ৫ মে এমপি আলহাজ্ব সাইমুম সরওয়ার কমল ঢাকার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে ভর্তি হয়ে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের তত্বাবধানে সেখানে চিকিৎসা নেন। তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয় বিষয়ক সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য আলহাজ্ব সাইমুম সরওয়ার কমল মহান আল্লাহর কাছে শোকরিয়া জ্ঞাপন করে তাঁর রোগমুক্তির জন্য যাঁরা দোয়া করেছেন, তাঁর খোঁজ খবর নিয়েছেন, চিকিৎসক স্বাস্থ্যকর্মী সহ সকলের প্রতি তিনি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন।

সোমবার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে ভিআইপি কেবিনে চিকিৎসারত এমপি সাইমুম সরওয়ার কমলকে দেখতে কক্সবাজার জেলা পরিষদ সদস্য নুরুল হকের সাথে রামু’র ফতেখাঁরকুল ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান সিরাজুল ইসলাম ভুট্টো, রামু উপজেলা পরিষদের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান আলী হোসেন এবং ইঞ্জিনিয়ার মঞ্জরুল হাসানও উপস্থিত ছিলেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •