সিবিএন ডেস্ক:
আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, গত বুধবার (৫ মে) দিনগত রাত ১১টার দিকে মন্ত্রণালয় সচিবের কাছে আবেদনটি এসেছে। আমার কাছে এখনো ফাইল পৌঁছায়নি। ফাইলটি পৌঁছালে যথাযথ পদক্ষেপ নেওয় হবে।

এর আগে বুধবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে এ সংক্রান্ত একটি আবেদন খালেদা জিয়ার ছোট ভাই শামীম ইস্কান্দার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খানের বাসায় গিয়ে পৌঁছে দেন। তবে এ বিষয়ে বিএনপির পক্ষ থেকে সাংবাদিকদের কিছু জানানো হয়নি।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান একটি বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেলকে জানিয়েছেন, তিনি আবেদন পেয়েছেন। তবে এটি আইন মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হবে।

গত ১০ এপ্রিল খালেদা জিয়া করোনা আক্রান্ত হন। ২৫ এপ্রিল ও ২ মেয়ে আরও দু’দফা করোনা পরীক্ষায় রিপোর্ট পজিটিভ আসে।

গত ২৭ এপ্রিল তাকে এভার কেয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ৩ মে শ্বাসকষ্ট বেড়ে গেলে সিসিইউতে স্থানান্তর করা হয়। বর্তমানে তাকে অক্সিজেন দেওয়া লাগছে। এ অবস্থায় পরিবারের সদস্যরা তাকে বিদেশে নিয়ে উন্নত চিকিৎসা দিতে চাচ্ছেন। কিন্তু দুই মামলায় ১৭ বছরের সাজা থাকা খালেদা জিয়াকে সরকারের নির্বাহী আদেশে মুক্তি দেওয়া হলেও শর্ত দেওয়া হয় তিনি বিদেশে যেতে পারবেন না। ফলে এখন তাকে বিদেশে যেতে হলে সরকারের নির্বাহী আদেশেই যেতে হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •