অনলঅইন ডেস্ক: দেশে নভেল করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণের জন্য সরকারিভাবে বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে চলাফেরায়। জরুরি সেবাসহ স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সকলের চলাচলের অনুমতি থাকলেও সরকার ঘোষিত বিধিনিষেধের মাঝে হয়রানির শিকার হচ্ছেন স্বাস্থ্যকর্মীরা— এমন অভিযোগ অনেক চিকিৎসকের। এই বিড়ম্বনা এড়াতে ব্যবস্থা নিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদফতর। ব্যবস্থা করা হয়েছে অটোজেনারেটেড আইডি কার্ডের।

রোববার (১৮ এপ্রিল) বিসিএস (স্বাস্থ্য) ক্যাডার কর্মকর্তাদের জন্য স্বাস্থ্য অধিদফতরের এমআইএস শাখার উদ্যোগে এইচআরআইএস (হিউম্যান রির্সোস ইনফরমেনশন সিস্টেম) সফটওয়্যারের মাধ্যমে এই অটোজেনারেটেড আইডি কার্ডের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

এই আইডি কার্ড পেতে চিকিৎসকদের নিজ নিজ এইচআরআইএস প্রোফাইলে ঢুকে ডাউনলোড করে প্রিন্ট করে নেওয়া যাবে অথবা মোবাইলেও সংরক্ষণ করা যাবে। এক্ষেত্রে সাইটে প্রবেশ করে ড্যাশবোর্ডে প্রোভাইডার ডিটেইলস দিতে হবে প্রথমে। পরবর্তী সময়ে প্রোফাইল সিলেকশন করে আইডি কার্ড নির্বাচন করতে হবে। স্বাস্থ্য অধিদফতরের অধীনে যেসব প্রতিষ্ঠান রয়েছে এটা কেবল তাদের জন্যই প্রযোজ্য হবে। আর বেসরকারি হাসপাতালগুলোর ব্যবস্থা তারা নিজেরা করবে।

এ বিষয়ে স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা সারাবাংলাকে বলেন, ‘দেশের সব সরকারি প্রতিষ্ঠান থেকেই চিকিৎসকদের আইডি কার্ড দেওয়া হয়ে থাকে। এক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠান থেকেই তারা আইডি কার্ড পেয়ে যান। এইচআর থেকে যে কেউ এটা সংগ্রহ করে নিতে পারে। বেসরকারি হাসপাতালেও এমনটা থাকার কথা।’

উল্লেখ্য, ১৪ এপ্রিল থেকে শুরু হয়েছে সরকার ঘোষিত কঠোর বিধিনিষেধ। এর প্রথম দিনেই হয়রানির শিকার হন চিকিৎসকরা। কঠোর বিধিনিষেধের এই সময়ে চিকিৎসকদের জন্য হাসপাতালে যাওয়ার গাড়িকেও মামলাও দেওয়া হয়। পরবর্তী সময়ে বিষয়টি সমাধান করা হলেও এটি নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দেখা যায় তুমুল সমালোচনা।-সারাবাংলা

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •