সিবিএন ডেস্ক:
শিকারের বন্দুক ও পেট্রোল বোমা নিয়ে নিরাপত্তা বাহিনীর বিরুদ্ধে লড়াই করছে মিয়ানমারের সামরিক অভ্যুত্থান বিরোধীরা। স্থানীয় সংবাদমাধ্যমের বরাত দিয়ে বৃহস্পতিবার বার্তা সংস্থা রয়টার্স এ তথ্য জানিয়েছে।

স্থানীয় সংবাদমাধ্যম মিয়ানমার নাউ ও ইরাবতি জানিয়েছে, প্রথমে তাজি শহরে ছয় ট্রাক ভর্তি সেনা মোতায়েন করা হয়েছিল। বিক্ষোভকারীরা বন্দুক, ছুরি ও পেট্রোল বোমা নিয়ে সেনাদের বিরুদ্ধে লড়াই শুরু করলে আরও পাঁচ ট্রাক ভর্তি সেনা নিয়ে আসা হয়। বৃহস্পতিবার সকাল পর্যন্ত লড়াই চলে। এ ঘটনায় ১১ জন নিহত ও ২০ জন হয়েছে। তবে হতাহতদের মধ্যে কোনো সেনা সদস্য নেই।

গত পহেলা ফেব্রুয়ারি মিয়ানমারের নির্বাচিত সরকারকে হটিয়ে ক্ষমতা দখল করে সেনাবাহিনী। এরপর থেকে সেনাবিরোধী বিক্ষোভে ছয় শতাধিক বিক্ষোভকারী নিহত হয়েছে।

এর আগের তাজির পাশের শহর কালেতে সেনাদের সঙ্গে সংঘর্ষে ১১ বিক্ষোভকারী নিহত হয়েছিল। নিরাপত্তা বাহিনী বিক্ষোভকারীদের লক্ষ্য করে তাজা গুলি ও গ্রেনেড ছুড়েছে। এমনকি তারা মেশিনগানও ব্যবহার করেছে।

এদিকে বৃহস্পতিবার পাইং তাখোন নামের এক মডেল ও অভিনেতাকে গ্রেপ্তার করেছে নিরাপত্তা বাহিনী। জনপ্রিয় এই মডেল সেনা অভ্যুত্থানের বিরুদ্ধে কথা বলেছিলেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •