ইমাম খাইর, সিবিএন:
করোনা পরিস্থিতি দিনদিন ভয়াবহ আকার ধারণ করেলেও এখনই কক্সবাজার সৈকতসহ পর্টন স্পটসমূহ বন্ধের কোন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়নি।

কক্সবাজারকেন্দ্রিক যে কোন সিদ্ধান্ত গ্রহণের বেলায় অনেক বিষয় বিবেচনা করতে হয়। তাই সংশ্লিষ্ট সব স্টেকহোল্ডারের সঙ্গে বসেই এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

তবে, খুব শিগগিরই কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতসহ পর্যটন কেন্দ্রগুলো বন্ধের ঘোষণা আসছে।

বুধবার (৩১ মার্চ) রাত সাড়ে ১০টার দিকে কক্সবাজার নিউজ ডটকম (সিবিএন)কে এসব কথা জানিয়েছেন জেলা প্রশাসক মো. মামুনুর রশীদ।

জেলা প্রশাসক বলেন, স্থানীয় সরকার বিভাগের সিনিয়র সচিব হেলালুদ্দিন আহমেদসহ সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে কথা বলে করণীয় ঠিক করা হবে।

আপাতত: সরকারের জারি করা ১৮ নির্দেশনা মত সৈকতে পর্যটক সমাগম সীমিত করার জন্য কাজ চলছে। সে জন্য যতটুকু সম্ভব কড়াকড়ি করা হচ্ছে।

তিনি বলেন, আগের মত সমুদ্র সৈকতে ব্যাপক জনসমাগম হতে দেওয়া হচ্ছে না। প্রতিদিন সৈকতে জেলা প্রশাসনের একাধিক ভ্রাম্যমাণ আদালত কাজ করছে। স্বাস্থ্যবিধি মানতে বাধ্য করা হচ্ছে।

এদিকে, করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধে জোর তৎপরতা চালিয়ে যাচ্ছে জেলা প্রশাসন।

বিভিন্ন গণপরিবহন ধারণ ক্ষমতার ৫০ভাগ যাত্রী নিয়ে চলাচলা করছে কিনা তা মনিটরিং করতে বুধবার অভিযান পরিচালিত হয়।

বাজারে স্বাস্থ্যবিধি প্রতিপালনসহ দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি নিয়ন্ত্রণ, বিভিন্ন হোটেল-মোটেলে স্বাস্থ্যবিধি এবং বাংলাদেশ হোটেল-রেস্তোরাঁ আইন-২০১৪ বাস্তবায়নে অভিযান করে জেলা প্রশাসনের টিম।

সবমিলিয়ে কক্সবাজার সদরে ২০ মামলায় আইন ভঙ্গকারীদের বড় অঙ্কের জরিমানা করা হয়। অভিযানের পাশাপাশি স্বাস্থ্যবিধি সংক্রান্ত লিফলেট ও মাস্কও বিতরণ করা হয়।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •