নিজস্ব প্রতিবেদক:
চকরিয়া ফাসিয়াখালী এলাকায় মাছ ব্যবসায়ীকে ডিবি পরিচয় দিয়ে ৪ লক্ষাধিক টাকা লুট ও মারধর করে ছেড়ে দেবার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

৮ মার্চ রাত আনুমানিক ১ টার সময় চকরিয়া ফাসিয়াখালী মৌলভীরকুম বাজারের দক্ষিনপাশে আরকান সড়কের উপর ঘটনাটি ঘটে বলে এজাহারে উল্লেখ রয়েছে।

এ ঘটনায় ভুক্তভোগী আনু বড়ুয়া বাদী হয়ে চকরিয়া থানায় অভিযোগ দায়ের করেন।

জানা যায়, আনু বড়ুয়া ও বদিউল আলম উখিয়া উপজেলার কোটবাজারের মাছ ব্যবসায়ী। ৮ মার্চ রাতে মাছ ক্রয় করার জন্য তারা চকরিয়া পথে রওনা দেয়। ফাসিয়াখালী মৌলভীরকুম বাজারের দক্ষিনপাশে আরকান সড়কের উপর পৌছালে আগে থেকে উৎপেতে থাকা ৮/৯ জন ডাকাত তাদের গতি রোধ করে। ডিবি পরিচয় দিয়ে ইয়াবা আছে বলে গাড়ী থেকে নামায়। ইযাবার কথা বলে বন্ধুক দিয়ে আনু বড়ুয়াকে আঘাত করে। পরে তারা বদিউল আলমকে গহীন পাহাড়ের ভিতর অপহরণ করে নিয়ে যাই। তাকে টাকার জন্য মারধর করতে থাকে। আনু বড়ুয়া তার সাথে থাকা ৩৯২০০০ টাকা সহ ৩ মোবাইল ফোন দিয়ে দিলে ডাকাতরা তাদের ছেড়ে দেয়।

ভুক্তভোগীরা স্থানীয় প্যানেল চেয়ারম্যান শওকত আলীর সহযোগিতায় আসামীদের নাম সংগ্রহ করে থানায় অভিযোগ দয়ের করেন।

প্যানেল চেয়ারম্যান শওকত আলী বলেন, আমি বিষয়টি জানার পর কারা ঘটনা ঘটিয়েছে তাদের প্রাথমিক ভাবে অনুমান করে ডেকেছিলাম। তারা বিষয়টিকে গুরুত্ব না দেওয়ায় আইনের আশ্রয় নিতে পরামর্শ দিয়েছি। এসব সন্ত্রসীদের আইনের আওতায় আনার জোর দাবী জানাচ্ছি।

চকরিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ বলেন, আমি অভিযোগ পেয়েছি। বিষয়টি তদন্ত করে ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •