cbn  

সিবিএন ডেস্ক:
তিতা হওয়ার কারণে অনেকে করলা খেতে চান না। তবে এর স্বাস্থ্যগুণ সম্পর্কে কমবেশি অনেকেই জানেন। ভিটামিন, বিটা-ক্যারোটিনসহ বিভিন্ন খনিজ উপাদানে ভরপুর করলা। বিভিন্ন রোগের প্রকোপ কমাতেও এর জুড়ি নেই।

করলা খেলেই দূর হবে পেটের সমস্যা। এক্ষেত্রে প্রতিদিন সকালে খেতে পারেন করলার রস। কোনো জায়গায় ক্ষত হলে বা কেটে গেলে করলার মূল পেস্ট করে লাগানো যেতে পারে। করলার মূল পাওয়া না গেলে তার বদলে ব্যবহার করা যেতে পারে পাতা। তাতে ব্যথা কমবে।

গলবাল্ডারে স্টোন হলে করলা খাওয়া উপকারের। করলার রস খাওয়াও যেতে পারে। কানে ব্যথা হলে ৪ ফোঁটা করোলার রস দেয়া যেতে পারে।

করলার রসে থাকে প্রচুর পরিমানে বিটা-ক্যারোটিন, যা দৃষ্টিশক্তির উন্নতিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে।

পুষ্টিগুণের বিবেচনায় করলা অনেক সমৃদ্ধ একটি সবজি। বিভিন্ন ধরনের রোগ প্রতিরোধ সহ সারাতে করলায় রয়েছে অসাধারণ পুষ্টি গুণাগুণ। প্রতি ১০০ গ্রাম করলায় রয়েছে খাদ্যশক্তি ১৭ কিলোক্যালরি, কার্বোহাইড্রেটস ৩.৭০ গ্রাম, প্রোটিন ১ গ্রাম, ফাইবার ২.৮০ গ্রাম, ফোলেট ৭২ মাইক্রো গ্রাম, নিয়াসিন ০.৪০০ মিলিগ্রাম, ভিটামিন এ ৪৭১ আইইউ, ভিটামিন সি ৮৪ মিলিগ্রাম, সোডিয়াম ৫ মিলিগ্রাম, পটাসিয়াম ২৯৬ মিলিগ্রাম, ক্যালসিয়াম ১৯ মিলিগ্রাম, ম্যাগনেসিয়াম ১৭ মিলিগ্রাম।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •