গত ২১/০২/২০২১ ইং তারিখে রিচিং আউট-অব স্কুল চিলড্রেন রস্ক ফেইজ-২ প্রকল্পের বাস্তবায়নকারি সংস্থা ইকো-সোশ্যাল ডেভেলপমেন্ট অর্গানাইজেশনের (ইএসডিও) দায়িত্বরত শ্রী প্রদীপ মহন্ত, উপজেলা সমন্বয়কারীর বিরুদ্ধে প্রকল্পের শিক্ষাথর্ীদের  ৮ (আট) লক্ষ টাকা আত্নসাৎ এর মিথ্যা সংবাদটি উদ্দেশ্য প্রনোদিতভাবে ভিত্তিহিন তথ্যের ভিত্তিতে সত্যতা যাচাইকরণ ছাড়াই কিছু সংখ্যক অনলাইন পত্রিকায় প্রকাশিত হয়। যা সম্পূর্ণ মিথ্যা ও ভিত্তিহীন বলে দাবি করেন ইএসডিও এর কর্মকর্তা উপজেলা সমন্বয়কারী প্রদীপ মন্ডল। শিক্ষাথর্ীদের ভাতা প্রদানের সঠিক নিয়মাবলী এবং তাতে ইএসডিও এর কার্যকলাপঃ প্রকল্পের নিয়ম অনুযায়ী শিক্ষাথর্ীদের দৈনিক ভাতা ১০০ টাকা হিসেবে ০২ টি ধাপে দেওয়া হবে। যার প্রথম ধাপে প্রত্যেক শিক্ষাথর্ী প্রথম ২০ দিনের ভাতা ও উপকরণ ভাতা ৪০০ টাকা হিসেবে দুই হাজার চার শত টাকা এবং দ্বিতীয় ধাপে বাকি ৫২ দিনের ভাতা ও উপকরণ ভাতা ৪০০ টাকা হিসেবে পাঁচ হাজার ছয়শত টাকা সর্বমোট আট হাজার টাকা দুই ধাপে পরিশোধ করা হবে। যা প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় হতে এরজিইডির এমআইএস সেলের মাধ্যমে প্রকল্প এলাকার সোনালী ব্যাংকের রস্ক ফেইজ-টু  প্রকল্পের একাউন্টে জমা হবে। সোনালী ব্যাংক উক্ত টাকা শিক্ষাথর্ীদের মাঝে বন্টন করবে। এই বিতরণ কার্যক্রমে বাস্তবায়নকারী সংস্থা ইএসডিও শুধু মাত্র শিক্ষাথর্ীদের যথা সময়ে যথা স্থানে উপস্থিত করার দায়িত্ব পালন করবে। শিক্ষাথর্ীদের টাকা কোনভাবেই ব্যক্তিক বা বাস্তবায়ন সংস্থার একাউন্টে আসবে না । তাই এই টাকা আত্নসাৎ করার সুযোগ ব্যক্তিক অথবা বাসতবায়নকারী সংস্থার পক্ষে কখনোই সম্ভবপর নয়। উল্লেখ্য প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় সোনালী ব্যাংকে এখনও পর্যন্ত টাকা ছাড় করে নাই। আমি বাস্তবায়নকারী সংস্থা ইকো-সোশ্যাল ডেভেলপমেন্ট অর্গানাইজেশনের (ইএসডিও) পক্ষ থেকে এই মিথ্যা ও ভিত্তিহীন সংবাদের অপপ্রচারের বিরুদ্ধে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি। প্রকল্প উদ্ভোধনের তারিখঃ ১৬/০৩/২০২০ প্রকল্প শেষের তারিখঃ ০৩/০১/২০২১ইং। ব্যাচ নং-০১ প্রশিক্ষণের মেয়াদঃ ৭২ শ্রেণিকর্মদিবস। বিঃদ্রঃ উক্ত ব্যাচটি করোনার কারণে ০৮ মাস কার্যক্রম স্থগিত ছিলো।

 

 

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •