cbn  

ছবি : বিট পুলিশিং সংক্রান্ত সভায় বক্তব্য রাখছেন আশেক উল্লাহ রফিক এমপি ও পুলিশ সুপার মোঃ হাসানুজ্জামান।

প্রেস বিজ্ঞপ্তি

আশেক উল্লাহ রফিক এমপি বলেছেন, মহেশখালীর আইনশৃংখলা পরিস্থিতি এখন সন্তোষজনক। আমরা চাই পরিস্থিতির আরো উন্নতি হোক। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন বর্তমান আওয়ামী লীগ সরকার দেশকে এখন মাধ্যম আয়ের দেশে উন্নিত করেছেন। দেশের উন্নয়নের পূর্বশর্ত আইনশৃংখলা পরিস্থিতির উন্নতি, তাই এই বিষয়ে প্রশাসনের দায়িত্বপ্রাপ্তদের আরো সজাগ হওয়া প্রয়োজন। সাধারণ মানুষ যাতে হয়রানির শিকার না হয় তা সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিতে হবে। সন্ত্রাস, নৈরাজ্যকে কঠোর হাতে দমন করতে হবে। পুলিশি সেবা জনগণের দোড়গোড়ায় পৌঁছাতে হবে। পুলিশ জনগণের বন্ধু তা নিশ্চিত করতে হবে। তিনি গতকাল মহেশখালীতে বিট পুলিশিং কার্যক্রম সংক্রান্ত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি’র বক্তব্যে একথা বলেন।

সভায় প্রধান আলোচক কক্সবাজার পুলিশ সুপার মোঃ হাসানুজ্জামান বলেন, থানায় দালালের কোন স্থান নেই। থানা হবে জনতার সেবার স্থান। এই ব্যাপারে সবাইকে সতর্ক করে বলেন, নির্বিঘেœ পুলিশি সেবা গ্রহন করুন। কোন দালাল নিয়ে সেবা গ্রহন করতে থানায় আসবেন না। পুলিশ আপনাদের সেবায় সবসময় প্রস্তুত রয়েছে। তিনি বলেন, বিট পুলিশিং বাড়ি-বাড়ি, নিরাপদ সমাজ গড়ি এই শ্লোগানকে প্রতিষ্ঠিত করি। পুলিশি সেবা নিশ্চিত করি। পুলিশ হবে জনগণের বন্ধু। পুলিশ কারো প্রতিপক্ষ নয়। সম্পুর্ণ নিরপেক্ষ থেকে কাজ করবে পুলিশ।

মহেশখালী উপজেলা অডিটরিয়ামে বিকাল ৩ টায় আয়োজিত বিট পুলিশিং কার্যক্রম সংক্রান্ত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন মহেশখালী থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আবদুল হাই। এতে বক্তব্য রাখেন মহেশখালী জোনের সহকারি পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মাহফুজুর রহমান, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আনোয়ার পাশা চৌধুরী, জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ও উপজেলা কমিউনিটি পুলিশের সভাপতি এম আজিজুর রহমান, মহেশখালী পৌরসভার মেয়র মকছুদ মিয়া, শাপলাপুরের চেয়ারম্যান এডঃ আবদুল খালেক, মুক্তিযোদ্ধা ছালেহ আহমেদ, ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ আহমদ কবির ও জেলা পরিষদ সদস্য মশরফা জান্নাত। এছাড়া স্থানীয় চেয়ারম্যান ও কমিউনিটি পুলিশের সদস্য বৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •