জাহেদ হাসানঃ
বনে বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ ও ক্রমাগত বন্যহাতি মারা যাওয়ার পরে নড়েচড়ে বসেছে বন বিভাগ।শুরু করেছে জনসচেতনামূলক কর্মসূচি।

রবিবার (২৪ জানুয়ারী) উখিয়া উপজেলার পালংখালী ইউনিয়নে থ্যাংখালী বনবিটের আওতাধীন তেলখোলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠ প্রাঙ্গণে মানুষ-হাতি দ্বন্দ্ব নিরসন, বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ বনজসম্পদ এবং বনভূমি রক্ষায় জনস‌চেতনতামূলক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

উখিয়া রেঞ্জের রেঞ্জ কর্মকর্তা গাজী শফিউল আলমের সহ‌যো‌গিতায় “হা‌তি কর‌লে সংরক্ষণ, রক্ষা হ‌বে সবুজ বন”প্রতিপাদ্যে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কক্সবাজার দক্ষিণ বন বিভাগের বিভাগীয় কর্মকর্তা মোঃ হুমায়ূন কবির।

মানুষ-হাতি সংঘাত নিরসন ও বন্য প্রাণী রক্ষায় করণীয় বিষয়ে সচেতনতামূলক সভায় সভাপ‌তিত্ব ক‌রেন পালংখালী ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য মোজাফ্ফর আহমদ।

বি‌শেষ অ‌তি‌থি হি‌সেবে উপ‌স্থিত ছি‌লেন,মাহবুবুর রহমান,ফিল্ড কো-অর্ডিনেটর,ইউএসএআই ডিএস গ্রীনলাইফ ফরেস্ট, পালংখালী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি এম এ মনজুর,তেলখোলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সিরাজুল কবির,নুর কামাল কবিরাজ,চেয়ারম্যান বাংলাদেশ হোমিওপ্যাথ ইউনানী-আয়ুর্বেদ -হারবাল সোসাইটি কক্সবাজার জেলা, সাংবাদিক নুরুল বশর।

সভায় আরো উপস্হিত ছিলেন,ছয় পু চিং চাকমা,বাউনু চাকমা(হেডম্যান)আবুল হাশেম(হেডম্যান), নিচামে চাকমা,

সভায় বক্তারা পরিবেশ রক্ষা ও হা‌তি সংরক্ষণের গুরুত্ব তু‌লে ধ‌রেন।মানুষ-হাতি সংঘাত নিরসন ও বন্য প্রাণী রক্ষায় করণীয় বিষয়ে সচেতনতামূলক সভায় রেঞ্জ কর্মকর্তাবৃন্দ, রাজনৈতিক ব্যক্তিবর্গ, ভিলেজার ও এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ বক্তব্য প্রদান করেন।

অনুষ্ঠান সঞ্চালনায় ছিলেন,কৃষ্ণ কুমার গুপ্ত,টেকনিক্যাল অফিসার ফরেস্ট্রী,গ্রীনলাইফ ফরেস্ট।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •