ছোটন কান্তি নাথ:
কক্সবাজার-১ আসনের সংসদ সদস্য ও চকরিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ জাফর আলম এমএ বলেছেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু যে স্বপ্ন নিয়ে পাকিস্তানী শাসকগোষ্ঠির পরাধীনতার শৃঙ্খল থেকে বাংলাদেশের মানুষকে মুক্ত করেছেন।
এইদেশের মানুষকে একটি স্বাধীন-সার্বভৌম রাষ্ট্র উপহার দিয়েছেন বঙ্গবন্ধুর সেই স্বপ্নের সফল বাস্তবায়ন করে যাচ্ছেন বঙ্গবন্ধু কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
রামুতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে ‘বঙ্গবন্ধু মেলা’র তৃতীয়দিনের আলোচনা সভায় সাংসদ জাফর আলম বুধবার (১৩ জানুয়ারি) রাতে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখছিলেন।
তিনি বলেন, বাংলাদেশ আজ বিশ্ববাসীর কাছে উন্নয়ন এবং শান্তির রোলমডেল হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করতে সক্ষম হয়েছেন শেখ হাসিনার মতো একজন নেতা প্রধানমন্ত্রী হওয়ায়। বিশ্বের অনেক পরাক্রমশালী রাষ্ট্র যেখানে করোনাকে মোকাবেলা করতে হিমসিম খেয়েছেন, অর্থনৈতিকভাবে বিপর্যস্ত হয়েছেন সেই করোনা মোকাবেলায়ও বিশ্ববাসীর কাছে শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্ব এবং পদক্ষেপ ভূয়সী প্রশংসা কুঁড়িয়েছে।
রামুর প্রবীণ আওয়ামী লীগ নেতা মাষ্টার ফরিদুল আলমের সভাপতিত্বে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান বক্তার বক্তব্য দেন সদর-রামু আসনের সংসদ সদস্য সাইমুম সরওয়ার কমল। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা জাফর আলম চৌধুরী, জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের মহিলাবিষয়ক সম্পাদিকা মুশরাত জাহান মুন্নী, আওয়ামী লীগ নেতা অ্যাডভোকেট হেলাল উদ্দিন হেলালী, রামু উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান রিয়াজুল আলম, উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক নীতিশ বড়ুয়া, চকরিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা রফিকুল ইসলাম। উপস্থিত ছিলেন মিঠাছড়ি ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ইউনুস ভুট্টো, জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক রুস্তম আলী, এমপি জাফর আলমের ব্যক্তিগত সহকারী আমিন চৌধুরী, হাসানুল ইসলাম আদরসহ জেলা, উপজেলা আওয়ামী লীগ এবং দলের বিভিন্ন সংগঠনের সিনিয়র নেতৃবৃন্দ এবং জনপ্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন আলোচনা সভায়।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে সাংসদ জাফর আলম আরো বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা রাষ্ট্রক্ষমতায় অধিষ্টিত আছেন বলেই দেশের মানুষ আজ সুখে-শান্তিতে বসবাস করছেন। সারাদেশকে তিনি উন্নয়নের অভিযাত্রায় চলমান রেখেছেন। দেশের এবং মানুষের প্রয়োজনে বড় বড় মেগাপ্রকল্প বাস্তবায়নের মধ্য দিয়ে উন্নয়নের মহাসড়কে বাংলাদেশ আজ দুর্বার গতিতে এগিয়ে চলেছে।
তিনি বলেন, সারাদেশে যতগুলো মেগাপ্রকল্প বাস্তবায়ন করা হচ্ছে তন্মধ্যে কক্সবাজারেই রয়েছে অসংখ্য বড় বড় মেগাপ্রকল্প। কক্সবাজারের মানুষকে তিনি উপহার দিয়েছেন রেললাইন। অচিরেই সেই রেললাইনে চেপে মানুষ সারাদেশে যাতায়াত করবে। রামু ক্যান্টনমেন্ট স্থাপন, ছয়লেনের মহাসড়ক, মাতারবাড়ি কয়লা বিদ্যুৎকেন্দ্র, মাতারবাড়ি গভীর সমুদ্রবন্দর, অর্থনৈতিক অঞ্চলসহ আরো অসংখ্য মেগাপ্রকল্প বাস্তবায়ন হচ্ছে কক্সবাজারকে ঘিরে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ ক্ষমতায় আছেন বলেই কক্সবাজারবাসী আজ এসব উন্নয়নে মহাসড়কে অবস্থান করছেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •