সংবাদদাতা:
মানুষের জন্য কিছু করার আকাক্সক্ষা, বাসনা সবার থাকে না, সবাই পারে না, জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেন পেরেছেন। তাঁর মহৎ কর্মই গণমানুষের মন জয় করেছে। জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেনের মহৎ কর্ম অন্যদের আশা জাগাবে, দেখাবে সৃষ্টির পথ।

সোমবার (৪ জানুয়ারী) রাত ৮টায় জেলা প্রশাসনের সার্বিক সহযোগিতায় কক্সবাজার সাংস্কৃতিক কেন্দ্র আয়োজিত বিদায়ী জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেনকে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও সম্মাননা প্রদান অনুষ্ঠানে বক্তারা এ কথা বলেন।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিদায়ী জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেন বলেন, সরকারের অর্পিত দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি আমি চেষ্টা করেছি কক্সবাজারবাসীর জন্য কিছু করার। যাতে ভবিষ্যত এর সুফল ভোগ করতে পারে। আমি যেখানে যায় এখানকার মানুষের কথা কখনো ভুলবো না। আমার হৃদয়ে কক্সবাজার নামটি সবসময় বিদ্যামান থাকবে।

কক্সবাজার সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের পরিচালক মং এ খেন এর সভাপতিত্বে ও কক্সবাজার সাংবাদিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক জাহেদ সরওয়ার সোহেলের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন বিদায়ী অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মাসুদুর রহমান মোল্লা, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিট্রেট মোহাম্মদ শাহজান আলী, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মো. আমিন আল পারভেজ, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক প্রসূন কুমার চক্রবর্তী, নবাগত জেলা প্রশাসক জাহেদ ইকবাল, সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সুরাইয়া আক্তার সুইটি, জেলা আওয়ামী লীগের সাংস্কৃতিক সম্পাদক এডভোকেট তাপস রক্ষিত, রিপোর্টার্স ইউনিটি কক্সবাজারের সভাপতি দৈনিক আজকের কক্সবাজার বার্তার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক এইচ,এম নজরুল ইসলাম, সাংবাদিক সংসদ কক্সবাজারের সভাপতি এম.এ আজিজ রাসেল ও কক্সবাজার আদিবাসি ফোরামের সাধারণ সম্পাদক মং থেলা রাখাইন। এর আগে বিদায়ী জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেনকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান কক্সবাজার সাংস্কৃতিক কেন্দ্র, জেলা শিল্পকলা একাডেমী, শিশু একাডেমী, সাংবাদিক সংসদ কক্সবাজার , কক্সবাজার আদিবাসী ফোরাম সাউন্ড সিস্টেম ওনার্স এসোসিয়েশন ও লাভ বাংলাদেশ কক্সবাজার শাখা।

অনুষ্ঠানে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশন করেন প্রখ্যাত ব্যান্ডদল ওআইজি, কক্সবাজার সাংস্কৃতিক কেন্দ্র, জেলা শিল্পকলা একাডেমী, আঞ্চলিক শিল্পী বুলবুল আক্তার ও নুরুল আলম কুতুবী। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন প্রভাষক ফারিয়া সামিয়া সারিকা।

 

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •