বিদেশ ডেস্ক:
ইসরায়েলের সঙ্গে সম্পর্ক স্থাপনের পর এবার সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাইয়ে একটি ইহুদি স্কুল স্থাপন করা হয়েছে। রবিবার ইসরায়েলের একজন শীর্ষস্থানীয় ইহুদি যাজক এর উদ্বোধন করেন। এ সময় তিনি আমিরাতের রাজপরিবারের নিরাপত্তার জন্য প্রার্থনা করেন।

ইৎজাক ইউসেফ নামের ওই যাজক বৃহস্পতিবার আমিরাতে পৌঁছান। কট্টরপন্থী হিসেবে পরিচিত এই যাজকের কোনও আরব দেশে এটিই প্রথম সফর।

ইসরায়েলের অফিসিয়াল টুইটার অ্যাকাউন্ট ‘ইসরায়েল ইন অ্যারাবিক’-এ দুবাইয়ের নতুন এই ইহুদি স্কুল উদ্বোধনের বিভিন্ন ছবি প্রকাশিত হয়েছে।

টাইমস অব ইসরায়েল-এর খবরে বলা হয়েছে, সফরের অংশ হিসেবে আমিরাতের রাজধানী আবু ধাবিতে নতুন একটি সিনাগগ (ইহুদি উপাসনালয়) উদ্বোধন করেন ইৎজাক ইউসেফ।

সফরে আমিরাতের সহিষ্ণুতা, সংস্কৃতি ও স্বাস্থ্য বিষয়ক মন্ত্রীসহ দেশটির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠকে মিলিত হন তিনি।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের মধ্যস্থতায় ২০২০ সালের সেপ্টেম্বরে ইসরায়েলের সঙ্গে সম্পর্ক স্থাপন করে সংযুক্ত আরব আমিরাত। ওই চুক্তির পর আবু ধাবির হোটেলগুলোকে বাধ্যতামূলকভাবে ইহুদি খাবার রাখার নির্দেশ দেয় কর্তৃপক্ষ। ইসরায়েলের নাম উল্লেখ না করেই আমিরাতে ব্যবসায়ের ক্ষেত্রে বিদেশিদের শতভাগ মালিকানার বিধান করে কর্তৃপক্ষ।

ইসরায়েলের সঙ্গে সম্পর্ক উন্নয়নের ধারাবাহিকতায় সর্বশেষ ১৩টি মুসলিম দেশের নাগরিকদের নতুন করে ভিসা দেওয়া বন্ধ করে দেয় আমিরাতি কর্তৃপক্ষ। ২০২০ সালের ১৮ নভেম্বর থেকে এই নিষেধাজ্ঞা কার্যকর হয়েছে। নিষেধাজ্ঞার আওতায় থাকা দেশগুলো হচ্ছে তুরস্ক, পাকিস্তান, আফগানিস্তান, লিবিয়া, ইয়েমেন, আলজেরিয়া, সোমালিয়া, কেনিয়া, ইরাক, লেবানন, তিউনিসিয়া, ইরান ও সিরিয়া।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •