কাজী আবদুল্লাহ:
১৯৭১ সালের মহান মুক্তিযুদ্ধের পরাজিত শক্তি, সাম্প্রদায়িক, উগ্র মৌলবাদী গোষ্ঠী কর্তৃক কুষ্টিয়ায় রাতের অন্ধকারে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নির্মাণাধীন ভাস্কর্য ভেঙ্গে ফেলার প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ করেছে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ কক্সবাজার জেলা শাখা।

কেন্দ্রীয় কর্মসূচীর অংশ হিসেবে রবিবার (৬ ডিসেম্বর) সকাল ১১ টায় জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি এসএম সাদ্দাম হোসাইন এবং সাধারণ সম্পাদক মারুফ আদনানের নেতৃত্বে কক্সবাজার কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার থেকে মিছিলটি শুরু হয়ে কক্সবাজার শহরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে শহীদ মিনারে এসে সংক্ষিপ্ত সমাবেশের মাধ্যমে শেষ হয়।

সমাবেশে কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ-সম্পাদক মারুফ আদনান বলেন, স্বাধীনতার মাসে এই মৌলবাদীরা আবারও ষড়যন্ত্র শুরু করেছে। ভুল ফতোয়া দিয়ে জনগণকে বিভ্রান্ত করতে উস্কানি দিচ্ছে। কুষ্টিয়ায় বঙ্গবন্ধুর নির্মানাধীন ভাস্কর্য ভাংচুর করে রাষ্ট্রের মূল কাঠামোয় আঘাত করেছে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কওমি মাদ্রাসার স্বীকৃতি দিয়েছেন। আলাদা বোর্ড গঠন করে দিয়ে সার্টিফিকেটের মর্যাদা দিয়েছেন, ৫’শতাধিক মডেল মসজিদ নির্মাণ করছেন। মাদ্রাসার সুপারেন্টেড পদকে অধ্যক্ষ পদে উন্নীত করেছেন। সারাদেশের মসজিদের ইমামদের বিগত ঈদে সম্মানী দিয়েছেন। তারপরও এই মৌলবাদীরা বাংলাদেশ নামক রাষ্ট্রের স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নিয়ে উল্টাপাল্টা বক্তব্য দিয়ে দেশে অস্থিতিশীল পরিবেশ তৈরি পাঁয়তারা করছে।

প্রতিবাদ সমাবেশে কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি মঈন উদ্দিন পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে কুষ্টিয়ায় বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভাঙ্গার সাথে জড়িতদের দ্রুত গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।

সভাপতির বক্তব্যে কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি এসএম সাদ্দাম হোসেন বলেন, দেশকে অস্থিতিশীল করতেই ষড়যন্ত্রকারীরা মূলত বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যে হাত দিয়েছে। তারা জানেন না বাংলাদেশের প্রতিটি মানুষের হৃদয়ে বঙ্গবন্ধুর স্থান রয়েছে। তাই বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে ষড়যন্ত্র না করার অনুরোধ জানাচ্ছি।

তিনি আরো বলেন, ছাত্রলীগ মাঠে নামলে কাউকে ছাড় দেয়া হবে না। মুমিনুল হকের মতো কাটমোল্লারা পালানোর পথ পাবে না। সাহস থাকলে মোকাবেলা করেন। এ সমস্ত ভন্ডদের জন্য ছাত্রলীগই যথেষ্ট।

প্রতিবাদ সমাবেশে ব্যক্তব্য রাখেন- কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি বোরহান উদ্দিন খোকন।

উপস্থিত ছিলেন- জেলা ছাত্রলীগ সহ-সভাপতি নারিমা জাহান, সাংগঠনিক সম্পাদক কামরুজ্জামান হিরু, কক্সবাজার সিটি কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি জাহেদ সিকদার রুবেল, কক্সবাজার পৌর ছাত্রলীগের সভাপতি হাসান ইকবাল রিপন, কক্সবাজার সরকারি কলেজ ছাত্রলীগ সভাপতি জাকির হোসেন, কক্সবাজার সিটি কলেজ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সাইদুল ইসলাম রিফাত, কুতুবদিয়া উপজেলা সাধারণ সম্পাদক তুহিন প্রমুখ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •