আবু সায়েম, কক্সবাজার :

কক্সবাজার উত্তর বন বিভাগের রামুর জোয়ারিয়ানালা রে‌ঞ্জের অভিযানে ঝুমছড়ি নামক এলাকায় মাছ চাষের জন্য অবৈধভাবে প্রাকৃতিক ছড়ায় বাঁধ কেটে দেওয়া ঘের নির্মাণসহ অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে ।
এতে করে সরকারী সম্পদ ভূমিদস্যুদের হাত থেকে উদ্ধার করা হয়েছে প্রায় ৫ একর জমি। তবে ভূমিদস্যুদের কাউকে আটক করতে পারেনি।
মঙ্গলবার (১৭ নভেম্বর) সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত অভিযান চালিয়ে জোয়ারিয়ানালার অধীনে থাকা ঝুমছড়ি এলাকায় অবৈধ ভাবে প্রাকৃতিক বাঁধ কেটে মাছের ঘের তৈরী এবং অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়।বিষয়টি অবগত করেছেন রামুর জেয়ারিয়ানালা রেঞ্জ কর্মকর্তা সুলতান মাহমুদ হাওলাদার।
তিনি বলেন ভূমিদস্যুদের জায়গা হবে না,। যারা বন বিভাগের জমি দখলে জবরদখল করছে তাদের আমরা কঠোর হাতে প্রতিরোধ করবো। বনবিভাগের জমিতে স্থাপনা নির্মানের খবর পেয়ে অভিযান চালিয়ে অবৈধ মাছের ঘের নির্মাণ এবং অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে। অভিযানে রামুুর জেয়ারিয়ানালা ও রে‌ঞ্জের স্টাফগণ অংশ গ্রহণ ক‌রে।
সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের প্রস্তুতি চলছে বলে জানিয়েছেন রেঞ্জ কর্মকর্তা সুলতান মাহমুদ হাওলাদার ।
অভিযানে কক্সবাজার উত্তর বনবিভাগের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা ( ডিএফও) তহিদুল ইসলাম এবং সহকারী বন সংরক্ষক সোহেল রানা উপস্থিত ছিলেন ।
কক্সবাজার উত্তর বন বিভাগের সহকারী বনসংরক্ষক সোহেল রানা বলেন, সরকারি বনভূমি উদ্ধারে বনবিভাগ সচেষ্ট রয়েছে। সরকারি জমিতে কেউ স্থাপনা নির্মাণ করলে উচ্ছেদ করা হবে এবং জবরদখল কারীদের বিরুদ্ধে অভিযান চালিয়ে বনভূমি রক্ষার্থে সচেষ্ট ভূমিকা পালন করবো। অভিযান চালিয়ে ভূমি জবরদখল এবং পাহাড়খেকোদের আইনের আওতায় আনা হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
  •